Search
Close this search box.
Search
Close this search box.

সুপারশপে ভারত থেকে আসা মেয়াদোত্তীর্ণ মহিষের মাংস বিক্রি

metরাজধানীর তেজগাঁওয়ে একটি হিমাগার থেকে ৮শ’ মণ ভেজাল মাংস ও ১২শ’ মণ খেজুর উদ্ধার করা হয়েছে। র‍্যাব ও প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের যৌথ অভিযানে এসব উদ্ধার করা হয়েছে। এ অপরাধে দেশী সুপার এগ্রো লিমিটেড নামে প্রতিষ্ঠান সিলগালা করা হয়েছে। বিভিন্ন মেয়াদের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে মালিকসহ ১৮ জনকে।

chardike-ad

অভিযানে মেলে প্রায় ৮০০ মণ মেয়াদউত্তীর্ণ কাঁচা মাংস যার মধ্যে ৫০০ মণ দুম্বা ও ৩০০ মণ মহিষের মাংস। ৫ মাস আগে মেয়াদ পার হওয়া এসব মাংস আমদানি করা হয়েছে ইথুপিয়া ও ভারত থেকে। উদ্ধার করা হয় ১২শ মণ ভেজাল খেজুরও।

প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের কর্মকর্তা জানান, অনুমোদন ছাড়াই এসব পণ্য আমদানি করা হয়। অপরাধের কথা স্বীকার করে প্রতিষ্ঠানটির মালিক জানান, ভেজাল এসব মাংস সরবরাহ করা হতো বিভিন্ন সুপার শপে।

প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের অনুমতি ছাড়া এবং কোন প্রকার কোয়ারেন্টাইন ছাড়াই ভারত থেকে আসছে মহিষের মাংস এবং ইথিওপিয়া থেকে দুম্বার মাংস।

র‍্যাবের সুত্রে জানানো হয় , ভারত ও ইথোপিয়া থেকে আসা মাংসের মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়েছে ৩ মাস আগে। রাজধানীর স্বপ্ন, মিনা বাজার সহ নামিদামি সুপার শপ এবং প্রায় ২৬৮ টি অভিজাত রেস্টুরেন্টে এর জন্য মেয়াদোত্তীর্ণ এসব মাংস নেয়া হয় তেজগাঁওয়ের দেশী সুপার এগ্রো লিমিটেডের এই হিমাগার থেকে। অস্বাস্থ্যকর পরিবেশের এই হিমাগারে অভিযান চালায় র‍্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত ও প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তর।

মেয়াদোত্তীর্ণ খাদ্যপণ্য মজুদকারীদের ৩২ লক্ষ টাকা জরিমানা, দুইজন মালিককে দুই বছরের এবং ১৮ জন শ্রমিক কে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।