Search
Close this search box.
Search
Close this search box.

দুই কোরিয়ার এক হওয়ার লক্ষ্য থেকে সরে গেলেন কিম

kimউত্তর ও দক্ষিণ কোরিয়া এক হবে; এমন লক্ষ্য থেকে সরে এসেছেন উত্তর কোরিয়ার কিমkiনেতা কিম জং উন। একই সঙ্গে তিনি দক্ষিণ কোরিয়াকে তাদের ‘প্রধান শত্রু’ হিসেবে ঘোষণা দিয়েছেন। খবর বিবিসির।

chardike-ad

বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, উত্তর কোরিয়ার সুপ্রিম পিপলস অ্যাসেম্বলি সোমবার মাতৃভূমির শান্তিপূর্ণ একীকরণ কমিটি এবং মাউন্ট কুমগাং আন্তর্জাতিক পর্যটন ব্যুরোসহ সব আন্তঃকোরিয় সংস্থা বিলুপ্তির সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে।

কোরিয়ান সেন্ট্রাল নিউজ এজেন্সির মঙ্গলবারের খবর অনুসারে, উত্তর কোরিয়ার চতুর্দশ সুপ্রিম পিপলস অ্যাসেম্বলির দশম অধিবেশনে উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন এই সিদ্ধান্তটি নেন।

কিম জং-উন বলেন, এতো দিন উত্তর কোরিয়া শান্তিপূর্ণ একীকরণের জন্য ‘একটি জাতি, একটি দেশ, দুই ব্যবস্থা’ নীতির কথা বলে এসেছে। কিন্তু তা আর সম্ভব নয়। এখন দুই দেশের সম্পর্ক জোড়া লাগানোর দায়িত্বে থাকা সব সংস্থাকে ভেঙে দেওয়া হবে।

এদিকে দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট এই সিদ্ধান্তের পাল্টা জবাবে বলেন, উত্তর কোরিয়ার থেকে কোনো প্রকার উসকানি পেলে আমরা দ্বিগুণ শক্তির সঙ্গে তার উত্তর দেবো।

১৯৫৩ সালে কোরিয়ান যুদ্ধ শেষ হওয়ার পর থেকে দুই কোরিয়া বিভক্ত হয়েছে। কিন্তু তারা এখনও আনুষ্ঠানিকভাবে যুদ্ধ সমাপ্তির কোনো শান্তি চুক্তি সই করেনি। দুই দেশ সম্প্রতি তাদের বৈদেশিক সম্পর্ক জোরদার করেছে।