নৌকায় যারা ভোট দিবে না তাদের তালিকা চান বদি

কক্সবাজার-৪ (উখিয়া-টেকনাফ) আসনের সাংসদ আবদুর রহমান বদি এক প্রতিবাদ সভায় বেফাঁস মন্তব্য করে আবারও আলোচনায় এসেছেন। গত শনিবার সন্ধ্যায় উখিয়া বাসস্টেশনের কাছে ফলিয়াপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে আয়োজিত এক প্রতিবাদ সভায় সাংসদ বদি তাঁর সমর্থকদের উদ্দেশে বলেন, ১০ বছর ধরে তিনি এলাকার দরিদ্র লোকজনকে সহায়তা করছেন। এরপরও যাঁরা তাঁর স্ত্রী শাহীন আক্তারকে ভোট দেবেন না, তাঁদের তালিকা তাঁকে দিতে হবে।

গত শুক্রবার রাতে কক্সবাজার-টেকনাফ সড়কের কাঞ্জরপাড়া এলাকায় সাংসদ বদির গাড়িতে দুর্বৃত্তদের হামলার প্রতিবাদে এই প্রতিবাদ সভার আয়োজন করা হয়েছিল। সমাবেশে বদি ছাড়াও বক্তব্য দেন এ আসনের আওয়ামী লীগ দলীয় প্রার্থী ও বদির স্ত্রী শাহীন আক্তার, সাংসদের চাচা শ্বশুর উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হামিদুল হক চৌধুরী প্রমুখ।

জানা গেছে, ওই প্রতিবাদ সভায় সাংসদ বদির বক্তব্যটি মুঠোফোনে ধারণ করে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়া হয়। ১ ডিসেম্বর বদির বক্তব্য সংবলিত ভিডিওটি আপলোড করা হয় ‘বিএনপি নিউজ উখিয়া-টেকনাফ’ নামের একটি ফেসবুক পেজে।

ওই প্রতিবাদ সভায় ভোটারদের প্রচ্ছন্ন হুমকি দেওয়ার পাশাপাশি বদি জেলা বিএনপির সভাপতি ও বিএনপির প্রার্থী শাহজাহান চৌধুরীকে উদ্দেশে করে আক্রমণাত্মক ভাষায় বেশ কিছু বক্তব্য দেন। তিনি বিএনপির প্রার্থীকে ৫০ হাজার ভোটের ব্যবধানে পরাজিত করারও ঘোষণা দেন।

বক্তৃতায় বদি তাঁর গাড়িতে হামলার জন্য সরাসরি শাহজাহান চৌধুরীকে অভিযুক্ত করে বলেন, শাহজাহান চৌধুরী তাঁর একটা গাড়িতে গুলি করেছেন। তবে তাঁর আরও চার-পাঁচটি গাড়ি আছে। বিএনপির প্রার্থীকে টেকনাফ আসার আহ্বান জানান তিনি।

শাহজাহান চৌধুরীর বয়স নিয়ে কটাক্ষ করে তিনি বলেন, শাহজাহান তাঁর শ্বশুর নুরুল ইসলামের সঙ্গে নির্বাচন করেছেন। এরপর নুরুল ইসলামের জামাতার (বদি) সঙ্গেও নির্বাচন করেছেন। এখন তাঁর মেয়ের সঙ্গেও নির্বাচন করছেন। এই বয়সে শাহজাহানের এটা শোভা পায় কি না, বদি সেই প্রশ্ন করেন।

জানতে চাইলে জেলা বিএনপির সভাপতি শাহজাহান চৌধুরী বলেন, প্রকাশ্য সমাবেশে বদি তাঁকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছেন। এই পরিস্থিতিতে নির্বাচনী প্রচারণা চালানো ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে গেছে। তাঁর কিছু হলে বদি দায়ী থাকবেন। প্রাণনাশের হুমকি ও আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে সাংসদ বদি ও তাঁর স্ত্রী শাহীন আক্তারের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে প্রধান নির্বাচন কমিশন বরাবরে অভিযোগ দিচ্ছেন বলে জানান তিনি।

এ প্রসঙ্গে সাংসদ বদি বলেন, ‘যা সত্য তাই বলেছি। আমাকে হত্যার উদ্দেশ্যেই শাহজাহান চৌধুরী চলন্ত গাড়িতে গুলি করিয়েছেন। যদিও ভাগ্যক্রমে আমি রক্ষা পেয়েছি।’ আচরণবিধি লঙ্ঘন প্রসঙ্গে সাংসদ বদি বলেন, ‘আমি তো প্রার্থী নই। তা ছাড়া এ রকম আচরণবিধি সবাই লঙ্ঘন করছে।’

সংবাদ সূত্রঃ প্রথম আলো।