sentbe-top

প্রবাসীদের বিভিন্ন সমস্যা সমাধানের আশ্বাস

saudiপ্রবাসীদের বিভিন্ন সমস্যা সমাধানের আশ্বাস দিয়েছেন সৌদি আরবে সফরত প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী ইমরান আহমদ। তিনি সরকারি সফরে সৌদি আরবের রিয়াদ, মদিনা, মক্কা ও জেদ্দা সফর করেছেন। প্রতিমন্ত্রী মদিনায় সৌদি আরবের শ্রম মন্ত্রণালয়ের মদিনা শাখার মহাপরিচালক ইঞ্জিনিয়ার আব্দুল্লাহ গাজী আলসাঈদী-এর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন।

পরে বাংলাদেশ কনস্যুলেট জেনারেল জেদ্দার আয়োজনে স্থানীয় ফ্রন্টটেল আল হারিথিয়া হোটেলে প্রবাসী বাংলাদেশিদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় অংশগ্রহণ করেন। ১০টায় জেদ্দায় স্থানীয় লা সানি হোটেলে প্রবাসী বাংলাদেশিদের সঙ্গে আরেকটি মতবিনিময় সভায় অংশগ্রহণ করেন।

সভায় প্রবাসী ব্যবসায়ী, শ্রমিক, বিভিন্ন পেশাজীবী এবং স্থানীয় কমিউনিটি নেতারা অংশগ্রহণ করেন। সভায় উপস্থিত প্রবাসীরা মক্কায় স্কুল প্রতিষ্ঠা, জেদ্দার স্কুলের উন্নয়ন, প্রবাসীদের জন্য বিনা শুল্কে গাড়ি এবং ৪০ ইঞ্চি পর্যন্ত টিভি বিদেশ থেকে নেয়ার ক্ষেত্রে কাস্টমস নীতি শিথিলকরণ, বাংলাদেশ বিমানের টিকিটের মূল্য কমানো, জাতীয় পরিচয়পত্র (এনআইডি) কার্ড প্রবাসে গ্রহণের ব্যবস্থা, প্রবাসীদের বিভিন্ন বিষয় তুলে ধরেন। প্রতিমন্ত্রী প্রবাসীদের সব দাবি-দাওয়ার বিষয়ে ভেবে দেখবেন বলে আশ্বাস প্রদান করেন।

৬ মার্চ দুপুরে জেদ্দা চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ড্রাস্ট্রিজ-এর বোর্ড মিটিং রুমে জেদ্দা চেম্বারের সেক্রেটারি জেনারেল হাসান ইব্রাহিম দাহলান-এর সভাপতিত্বে জেদ্দাস্থ রিক্রুটিং এজেন্সির মালিক/প্রতিনিধির সঙ্গে প্রতিমন্ত্রী মতবিনিময় করেন। এ সময় জেদ্দার ২৬টি রিক্রুটিং এজেন্সির মালিক/প্রতিনিধি, জেদ্দা চেম্বারের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তা, বাংলাদেশ কনস্যুলেটের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এ সময় কনসাল জেনারেল এফ. এম. বোরহান উদ্দিন তার বক্তব্যে বাংলাদেশের সাম্প্রতিক অর্থনৈতিক উন্নয়নের সার্বিক পরিস্থিতি তুলে ধরেন এবং বাংলাদেশ-সৌদি আরব দ্বি-পাক্ষিক সম্পর্কের ওপর আলোকপাত করেন। সভায় সৌদি আরবে রিক্রুটিং এজেন্সির মালিকরা অতিরিক্ত শ্রমশক্তি নিয়ে কথা বলেন এবং বাংলাদেশ থেকে সৌদি আরবে দক্ষ শ্রমিক আনার বিষয়ে জোর দেন।

তারা বাংলাদেশ থেকে শ্রমিক আনতে অতিরিক্ত অভিবাসী ব্যয় ও সময় লাগার বিষয়ে প্রতিমন্ত্রীকে অবহিত করেন এবং দ্রুত সময়ে শ্রমিক পাঠানোর জন্য প্রতিমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন। তারা বাংলাদেশের শ্রমিকদের ভূয়সী প্রশংসা করেন।

প্রতিমন্ত্রী এ সকল সমস্যা সমাধানের বিষয়ে প্রতিশ্রুতি দেন এবং যে কোন সমস্যায় তার সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ করার জন্য পরামর্শ দেন। প্রতিমন্ত্রী সৌদি ব্যবসায়ীদের বাংলাদেশে বিনিয়োগ করার জন্য আহ্বান জানান। শেষে জেদ্দা চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ড্রাস্ট্রিজ-এর সেক্রেটারি জেনারেল প্রতিমন্ত্রীর সৌজন্যে মধ্যহ্নভোজের আয়োজন করেন।

সৌজন্যে- জাগো নিউজ

sentbe-top