sentbe-top

লন্ডন হামলায় নিহত ব্যক্তি বাংলাদেশি!

london-attackইংল্যান্ডের রাজধানী লন্ডনে মসজিদের কাছে তারাবি নাজাজ পড়া শেষ করে আসা ব্যক্তিদের ওপর ভ্যান উঠানোর ঘটনায় একজন প্রবাসী বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন বলে জানা গেছে। আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম দ্য টেলিগ্রাফ নিহত ব্যক্তি প্রবাসী বাংলাদেশি বলে জানালেও তার নাম-ঠিকানা জানাতে পারেনি।

লন্ডনের উত্তরাংশে সেভেন সিস্টারস রোডের ফিন্সবারি পার্ক মসজিদের কাছে স্থানীয় সময় রোববার ন্যাক্কারজনক এই হামলার ঘটনাটি ঘটে। নামাজ ফেরত মুসল্লিদের ওপর আক্রমণের ঘটনায় একজন নিহত এবং কমপক্ষে ১০ জন আহত হন। নিহত ব্যক্তি মসজিদের মুসল্লিদের সঙ্গে তারাবিহ-এর নামাজ শেষ করে বাসায় ফিরছিলেন।

সুলতান আহমেদ নামের লন্ডনে জনকল্যাণে নিযুক্ত এক বাংলাদেশি কর্মী বলেন, ‘হামলার সময় সেখানে তার চাচা উপস্থিত ছিলেন। মসজিদে নামাজ শেষ তার চাচার সামনেই ভ্যানটি নামাজ ফেরত মুসল্লিদের ওপর উঠিয়ে দেওয়া হয়। ঘটনাস্থলেই তুলনামূলক বয়স্ক ওই বাংলাদেশি মারা যান।’ ঘটনাস্থলটি হলো ইংল্যান্ডের প্রধান বিরোধী দল লেবার পার্টির নেতা জেরেমি করবিনের নির্বাচনী এলাকা।

জানা গেছে, মুসল্লিদের ওপর হামলা চালিয়ে পালানোর সময় উপস্থিত জনতা হামলাকারীকে আটক করে। পরে পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে। লন্ডন মেট্রোপলিটন পুলিশ বলছে, পুলিশের সন্ত্রাসবিরোধী কর্মকর্তারা বিষয়টি তদন্ত করছেন। এদিকে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, হামলাকারী ওই হন্তারক ভ্যানটিতে তিনজন ছিলেন। পুলিশের হাতে একজন আটক হলেও অন্যরা পালিয়ে যান।

ব্রিটেনের প্রধান বিরোধী দলের এই নেতা জেরেমি করবিন বলেন, ‘আমি অন্যান্য হামলার এই বিষয়টিকে গুরুত্ব দিচ্ছি।’ এই ঘটনায় শোক প্রকাশ করেছেন ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মেও।

মুসলিম কাউন্সিল অব ব্রিটেন (এমসিবি) জানিয়েছে, উদ্দেশ্যমূলকভাবে ভ্যানটি মুসল্লিদের ওপর তুলে দেয়া হয়েছে। তারা যুক্তরাজ্যের মসজিদগুলো ঘিরে রাড়তি নিরাপত্তা মোতায়েনের দাবি করেছেন।

sentbe-top