sentbe-top

কিম মুনের ঐতিহাসিক সম্মেলনের সময়সূচি

kim-moon

এক দশকের বেশি সময় পর বৈঠকে বসতে চলেছেন উত্তর কোরিয়া ও দক্ষিণ কোরিয়ার দুই নেতা। আগামীকাল শুক্রবার স্থানীয় সময় সকাল সাড়ে নয়টায় প্রেসিডেন্ট মুন জে ইন এবং কিম জং উন পানমুনজমের মিলিটারি ডিমারকেশন লাইনে সাক্ষাত করবেন। এরপরই দুই নেতা অভ্যর্থনা অনুষ্ঠানে যোগ দিবেন। সকাল সাড়ে দশটায় আলোচনায় মিলিত হবেন দুই দেশের প্রধান।

সকালে প্রথম দফা আলোচনার পর কিম জং উন ও মুন জে ইন আলাদাভাবে দুপুরের খাবার খাবেন। দুপুরের খাবার গ্রহণ শেষে শান্তি ও সমৃদ্ধির প্রতীক হিসেবে সীমারেখায় একটি পাইন গাছের চারা রোপণ করবেন দুই নেতা। বৃক্ষরোপণে যে মাটি ব্যবহৃত হবে তা আনা হয়েছে উত্তর কোরিয়ার পায়েকতু এবং দক্ষিণ কোরিয়ার জেজুর হাল্লা পাহাড় থেকে।  চারাগাছে ছিটানো হবে উত্তরের তায়েডং ও দক্ষিণের হান নদী থেকে আনা পানি।

পিস হাউস থেকে পানমুনজনে গিয়ে দুই প্রেসিডেন্ট দ্বিতীয় দফার আলোচনা শুরু করবেন। আলোচনার পর দুই নেতা একটি চুক্তিতে স্বাক্ষর করবেন এবং চুক্তির বিষয়ে ঘোষণা দিবেন।

সন্ধ্যায় কিম ও মুন একসাথে ডিনারে অংশ নিবেন ‘স্প্রিং অব ওয়ান’ নামে একটি ভিডিও উপভোগ করবেন।

আজ বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলনে দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্সিয়াল চিফ অব স্টাফ ইম জং সাংবাদিকদের সামিটের বিস্তারিত ব্যাখ্যা করেন। তিনি বলেন অ-পারমাণবিকীকরণ এবং স্থায়ী শান্তির ব্যাপারে আলোচনা হবে।

sentbe-top