cosmetics-ad

মাদারীপুরে হোম কোয়ারেন্টাইনে ১৭৬ প্রবাসী

madaripur-hospital

করোনা ভাইরাস নিয়ে মাদারীপুরের মানুষের মাঝে আতঙ্ক বিরাজ করছে। জেলায় বিভিন্ন দেশ থেকে আসা প্রবাসীদের মধ্যে শনিবার দুপুর পর্যন্ত ১৭৬ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। এছাড়া করোনা ভাইরাসে আক্রান্তদের জন্য জেলা সদর হাসপাতালসহ তিনটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ১০টি বেড প্রস্তুত রাখা হয়েছে। প্রয়োজন হলে আরও ১০০টি বেড প্রস্তুত করা হবে বলে জানিয়েছে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ।

জেলা স্বাস্থ্য অফিস সূত্রে জানা গেছে, মাদারীপুরে বিভিন্ন দেশ থেকে আসা প্রবাসীদের মধ্যে শনিবার দুপুর পর্যন্ত ১৭৬ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সদর হাসপাতালের পুরাতন ভবনের দুটি কেবিনের ৪টি বেড সম্পূর্ণ প্রস্তুত রয়েছে। এছাড়াও কালকিনি, রাজৈর ও শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সগুলোতে ২টি করে বেড প্রস্তুত রাখা হয়েছে।

এছাড়া মাদারীপুর সদর হাসপাতালের নতুন ২৫০ শয্যার ভবনটি জেনারেল হাসপাতাল হিসেবে উদ্বোধনের অপেক্ষায় রয়েছে। পরিস্থিতি যদি অস্বাভাবিক হয় তাহলে ২৫০ শয্যার ভবনটিতে করোনা আক্রান্ত রোগীদের জন্য আরো একশ বেড প্রস্তুত করা হবে।

মাদারীপুর সিভিল সার্জন ডা. মো. শফিকুল ইসলাম বলেন, বিভিন্ন দেশ থেকে আসা প্রবাসীদের মধ্যে শনিবার দুপুর পর্যন্ত ১৭৬ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। আমাদের মেডিকেল টিম সার্বক্ষণিক তাদের পর্যবেক্ষণে রেখেছে। বিদেশে থেকে যারা মাদারীপুরে আসছেন তাদের আমরা করোনা সম্পর্কে বিভিন্ন উপদেশ দিয়ে যাচ্ছি।

তিনি আরও বলেন, সদর হাসপাতালে করোনো ভাইরাসে আক্রান্ত কোনো রোগী আসেননি। মাদারীপুরে ইতালি ফেরত যে একজন রোগী আক্রান্ত হয়েছিলেন তিনি চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়ে ঢাকা থেকে বাড়ি ফিরেছেন।