sentbe-top

প্রধান অতিথি “গরু” বিশেষ অতিথি “ছাগল”!

cow-goatখুলনার পাইকগাছা উপজেলায় অমর একুশে ফেব্রুয়ারি দিবস উপলে পাইকগাছা উপকূল সাহিত্য পরিষদ আয়োজিত দুই দিনব্যাপী বইমেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে গরুকে প্রধান অতিথি ও ছাগলকে বিশেষ অতিথি করা হয়। তবে অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন খুলনা-৬ (কয়রা-পাইকগাছা) আসনের সাবেক সংসদ সদস্য, পাইকগাছা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপকূল সাহিত্য পরিষদের সভাপতি অ্যাডভোকেট স ম বাবর আলী। গত শুক্রবার সন্ধ্যায় পাইকগাছা কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে অনুষ্ঠিত এ অনুষ্ঠানে গরু-ছাগলকে অতিথি দেখে হতবাক হয়ে ফিরে যান অনেক বইপ্রেমিক ও এলাকাবাসী।
ঘটনার নিন্দা জানিয়ে এলাকার সংসদ সদস্য আওয়ামী লীগ নেতা অ্যাডভোকেট শেখ মো: নুরুল হক বলেন, এমন একটি অনুষ্ঠানে গরু-ছাগলকে অতিথি করে উনি (সভাপতি) কী বোঝাতে চেয়েছেন তা আমি জানি না। তবে এতে সমগ্র মনুষ্য সমাজকে হেয় করা হয়েছে। শহীদ মিনারকে অবমাননা করা হয়েছে। তিনি অনুষ্ঠানের আয়োজকদের মস্তিষ্কবিকৃতি ঘটেছে বলেও মন্তব্য করেন।
ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে স্থানীয় পত্রিকা আজাদ বার্তার সম্পাদক অ্যাডভোকেট এম মাফতুন আহমেদ বলেন, অনুষ্ঠানের আয়োজক স্থানীয় সুধী সমাজকে হেয় করতেই পরিকল্পিতভাবে এমন কাজ করেছেন বলে মনে হয়। মানুষকে বই পড়তে আগ্রহী করতে এমন নির্বোধের মতো কাজ করা কারোর জন্য সম্মানজনক নয়।
এসব ব্যাপারে জানতে চাইলে অনুষ্ঠানের আয়োজক ও পাইকগাছা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান স ম বাবর আলী বলেন, ইদানীং মানুষ বই পড়া ছেড়ে দিয়েছে। মানুষকে বই পড়তে আগ্রহী করার জন্য আমরা এ ব্যতিক্রমধর্মী আয়োজন করেছি। কাউকে হেয় প্রতিপন্ন করার উদ্দেশ্যে নয়।
এ ব্যাপারে পাইকগাছা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো: কবির উদ্দীন বলেন, শহীদ মিনারে এ ধরনের কোনো অনুষ্ঠানের আয়োজন সম্পর্কে তার জানা নেই। বিষয়টি তদন্ত করা হবে।
অমর একুশে ফেব্রুয়ারি উপলে শহীদ মিনার চত্বরে দুই দিনব্যাপী বইমেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে রাখা হয়েছে ‘গরু’ ও বিশেষ অতিথি ‘ছাগলের’ লেখা ছিল ‘তোরা যে যা বলিস ভাই, আমি বই পড়ি না, আমাকে বই পড়তে বলো না।’ অনুষ্ঠানে উপজেলা চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা অ্যাডভোকেট স ম বাবর আলী ছাড়া অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট শফিকুল ইসলাম কচি, জাপা নেতা শেখ আব্দুস সোবহান, আওয়ামী লীগ নেতা আনোয়ার ইকবাল মন্টু, উপজেলা চেয়ারম্যান শাহিনা বাবর, সহকারী সমাজসেবা অফিসার মুক্তিযোদ্ধা সরদার মোহাম্মদ নাজিম উদ্দীন, শিক মুনছুর হাসান, খলিলুর রহমান, আব্দুল খালেক, রফিকুল ইসলাম ও আজহারুল ইসলাম।

sentbe-top