সড়ক দুর্ঘটনায় পলাশবাড়ীতে এক দিনেই নিহত ১০

polashbari death accidentগাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় ১০ জন শ্রমিক নিহত হয়েছেন। আহত কমপক্ষে ১৫ জন। আজ শনিবার সকাল ও দুপুরে ঢাকা-রংপুর মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

উপজেলা সদরের জুনদহ এলাকায় রডবোঝাই ট্রাক উল্টে ঘটনাস্থলে সাতজন শ্রমিক নিহত হন। ট্রাকের নিচে পড়ে আহত হয়েছেন কয়েকজন। তাঁদের উদ্ধারে অভিযান চলছে। আজ দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে এই দুর্ঘটনা ঘটে। হতাহত ব্যক্তিদের পরিচয় এখন পর্যন্ত পাওয়া যায়নি।
পলাশবাড়ী থানা-পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, দুপুরে রডবোঝাই একটি ট্রাক ঢাকা থেকে রংপুর যাচ্ছিল। দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে জুনদহ এলাকায় একটি মোটরসাইকেলকে জায়গা দিতে গিয়ে ট্রাকের চালক নিয়ন্ত্রণ হারান। এতে ট্রাকটি উল্টে মহাসড়কের পাশে পড়ে যায়। এ ঘটনায় ঘটনাস্থলেই ট্রাকের সাতজন শ্রমিক নিহত হন। ট্রাকের নিচে পড়ে কয়েকজন শ্রমিক আহত হন।

এর আগে সকালে একই উপজেলা সদরের সরকার ফিলিং স্টেশনের সামনে চালক নিয়ন্ত্রণ হারালে একটি বাস থেমে থাকা একটি ট্রলিকে ধাক্কা দিলে তিন নির্মাণ শ্রমিক নিহত হন। আহত হয়েছেন অন্তত ১০ জন। আজ সকাল সাড়ে ১০টার দিকে এই দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত শ্রমিকেরা হলেন গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার নাকাই গ্রামের জাকির হোসেন (২৫), একই উপজেলার শিবপুর গ্রামের খসরু মিয়া (৫০) ও একই গ্রামের রাজু মিয়া (২৪)। আহত ব্যক্তিদের পরিচয় পাওয়া যায়নি।

polashbari death accident 02পলাশবাড়ী থানা-পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, আজ সকালে এসএন ট্রাভেলস নামের একটি যাত্রীবাহী বাস রংপুর থেকে বগুড়া যাচ্ছিল। সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বাসটি পলাশবাড়ী উপজেলা সদরের সরকার ফিলিং স্টেশনের সামনে পৌঁছালে বাসের একটি চাকা ফেটে যায়। এতে চালক নিয়ন্ত্রণ হারান। এ সময় বাসটি মহাসড়কের ওপর দাঁড়িয়ে থাকা ইঞ্জিনচালিত ট্রলিকে (ভটভটি) ধাক্কা দেয়। ঘটনাস্থলেই ট্রলির তিন নির্মাণ শ্রমিক নিহত হন। এ ছাড়া ট্রলি ও বাসের আরও অন্তত ১০ শ্রমিক আহত হন।

দুটি দুর্ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন পলাশবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহবুবুল আলম। মুঠোফোনে তিনি বলেন, জুনদহে ট্রাক উল্টে হতাহত ব্যক্তিদের সবাই শ্রমিক। তাঁরা ট্রাকের ওপরে ছিলেন। ট্রাকের নিচে পড়ে সাতজন মারা যান। চালক পলাতক।

ওসি জানান, বাসের ধাক্কায় ট্রলির নিহত শ্রমিকদের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় আহত ব্যক্তিদের উদ্ধার করে পলাশবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তিনি জানান, বাসটি দুর্ঘটনাস্থলে রেখে চালক পালিয়ে গেছেন।