Search
Close this search box.
Search
Close this search box.

আমিরাতে মোবাইল চুরির দায়ে দুই প্রবাসীকে দুই বছরের কারাদণ্ড

amirat
ফাইল ছবি

মাত্র ৯২০ টাকা ও একটি মোবাইল ফোন চুরির অভিযোগে দুই প্রবাসীকে দুই বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন সংযুক্ত আরব আমিরাতের এক আদালত। আমিরাতের রাস আল খাইমাহ অপরাধ আদালতের বিচারক এশীয় ওই দুই প্রবাসীকে মোবাইল চুরির দায়ে দোষী সাব্যস্ত করে এ রায় ঘোষণা করেছেন।

সোমবার আমিরাতের ইংরেজি দৈনিক খালিজ টাইমস এক প্রতিবেদনে বলছে, আদালতের প্রধান বিচারক সামেহ শাকের সাজা শেষে অভিযুক্তদের নিজ দেশে ফেরত পাঠানোরও নির্দেশ দিয়েছেন।

আদালতের নথিতে বলা হয়েছে, রাস আল খাইমাহর জাজিরা আল হামরা এলাকার একটি শ্রম শিবিরের কাছে এক শ্রমিককে আটক করেন অভিযুক্তরা। ওই শ্রমিকের কাছে গ্যাস লাইট চান তারা। এ সময় হঠাৎ তাকে পেছন থেকে সজোরে আঘাত করে মাটিতে ফেলে দেয়া হয়। পরে তার পকেট থেকে মোবাইল ফোন ও আমিরাতি ৪০ দিরহাম (বাংলাদেশি ৯২০ টাকা) ছিনিয়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে অভিযুক্তরা।

এ সময় ওই শ্রমিক মাটি থেকে ওঠে সাইকেল পলায়নরত দুই ছিনতাইকারীকে পেছন থেকে টেনে ধরেন। তাদের মধ্যে একজন জাপটে ধরে মাটিতে ফেলেন। সহায়তার জন্য চিৎকার করলে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে অন্যজনকেও ধরে ফেলে।

রাস আল খাইমাহ পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে ওই দুই ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করে। পরে রাস আল খাইমাহ আদালতে তোলা হয় তাদের; আদালত এ দুই জনের বিরুদ্ধে মারধর এবং ছিনতাইয়ের অভিযোগ গঠন করে।

chardike-ad

রাস আল খাইমাহর ফৌজদারি আদালতে সন্দেহভাজন এ দুই ছিনতাইকারী তাদের অপরাধ স্বীকার করে নিয়েছেন। অভিযুক্তরা বলেছেন, তারা সেদিন বড় পরিমাণের ছিনতাইয়ের আশা করেছিলেন। আদালত তাদের বিরুদ্ধে দুই বছরের কারাদণ্ডের সাজা ঘোষণা করেছেন। তবে এ দুই প্রবাসী এশিয়ার কোন দেশের নাগরিক সেব্যাপারে তথ্য প্রকাশ করেনি আমিরাত।