sentbe-top

শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে নিউজিল্যান্ডের শুভসূচনা

New-Zealandঘরের মাঠে বিশ্বকাপের শুরুটা দুর্দান্ত হয়েছে নিউজিল্যান্ডের। পুল ‘এ’-এর প্রথম ম্যাচে শ্রীলঙ্কাকে ৯৮ রানে হারিয়ে কিউইরা টুর্নামেন্টে শুভসূচনা করেছে। সেই সঙ্গে প্রতিশোধও নেওয়া হলো নিউজিল্যান্ডের। গত বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে এই শ্রীলঙ্কার কাছে হেরে বিদায় নিতে হয়েছিল তাদের।

শনিবার ক্রাইস্টচার্চে আগে ব্যাট করে ৬ উইকেটে ৩৩১ রানের পাহাড় গড়ে নিউজিল্যান্ড। জবাবে ৪৬.১ ওভারে ২৩৩ রানে অলআউট হয় শ্রীলঙ্কা।

নিউজিল্যান্ডের দেওয়া ৩৩২ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা অবশ্য ভালোই হয়েছিল শ্রীলঙ্কার। লাহিরু থিরিমান্নের সঙ্গে ১৩ ওভারে ৬৭ রানের উদ্বোধনী জুটি গড়েন তিলকারত্নে দিলশান। কিউই স্পিনার ড্যানিয়েল ভেট্টোরির ফিরতি ক্যাচে বিদায় নেওয়ার আগে দিলশান ২৪ রান করেন।

এরপর দ্বিতীয় উইকেটে থিরিমান্নে ও কুমার সাঙ্গাকারা মিলে দলকে ভালোই এগিয়ে নিয়ে যেতে থাকেন। কিন্তু দলীয় ১২৪ থেকে ১২৯ রানের মধ্যে থিরিমান্নে, মাহেলা জয়াবর্ধনে ও সাঙ্গাকারার উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়ে শ্রীলঙ্কা।

থিরিমান্নে-সাঙ্গাকারা জুটিতে আসে ৫৭ রান। থিরিমান্নে ৬০ বলে ৮ চারে ৬৫ রান করেন। সাঙ্গাকারার ব্যাট থেকে আসে ৩৯ রান। তার ৩৮ বলের ইনিংসে ছিল ৫টি চারের মার।

ষষ্ঠ উইকেটে দিমুথ করুণারত্নে ও অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুস কিছুটা প্রতিরোধ গড়লেও তাদের ৩৪ রানের জুটি ভাঙেন অ্যাডাম মিলনে। করুণারত্নেকে (১৪) বোল্ড করে সাজঘরে ফেরান তিনি।

এরপর ম্যাথুসের দৃঢ়তায় ২০০ রানের কোটা পার করে শ্রীলঙ্কা। তবে ২৩৩ রানের বেশি করতে পারেনি তারা। ম্যাথুস ৫১ বলে ৫ চারে ৪৬ রান করেন।

নিউজিল্যান্ডের বোলারদের মধ্যে ট্রেন্ট বোল্ট, অ্যাডাম মিলনে, ড্যানিয়েল ভেট্টোরি, টিম সাউদি ও কোরি অ্যান্ডারসন ২টি করে উইকেট ভাগ করে নেন।

এর আগে টস জিতে নিউজিল্যান্ডকে ব্যাটিংয়ের আমন্ত্রণ জানান শ্রীলঙ্কার অধিনায়ক অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুস। আর ব্যাটিংয়ে নেমে স্বাগতিকদের উড়ন্ত সূচনা এনে দেন দুই ওপেনার মার্টিন গাপটিল ও ব্রেন্ডন ম্যাককালাম।

উদ্বোধনী জুটিতে মাত্র ১৫.৫ ওভারে ১১১ রান সংগ্রহ করেন গাপটিল-ম্যাককালাম। রঙ্গনা হেরাথের বলে জেভান মেন্ডিসের হাতে ধরা পড়ার আগে ৬৫ রান করেন ম্যাককালাম। ১০টি চার ও এক ছক্কায় সাজানো ছিল তার ৪৯ বলের ইনিংসটি।

দলীয় ১৩৬ রানে বিদায় নেন গাপটিল। মাত্র ১ রানের জন্য হাফ সেঞ্চুরি মিস করেন তিনি। সুরাঙ্গা লাকমালের বলে কুমার সাঙ্গাকারার ক্যাচ হওয়ার আগে ৬২ বলে ৪৯ রান করেন গাপটিল।

এরপর তৃতীয় উইকেটে কেন উইলিয়ামসন ও রস টেলর মিলে ৬৫ রানের জুটি গড়েন। জেভান মেন্ডিসের পর পর দুই বলে বিদায় নেন এই দুজন। উইলিয়ামসন ৬৫ বলে ৫৭ ও টেলর ২৮ বলে ১৪ রান করেন।

পঞ্চম উইকেটে নিউজিল্যান্ডকে আরেকটি বড় জুটি উপহার দেন গ্র্যান্ট এলিয়ট ও কোরি অ্যান্ডারসন। এ জুটিতে ৬৫ রান তুলে বিদায় নেন এলিয়ট (২৯)।

এরপর দলের স্কোর পাহাড়ে তোলেন অ্যান্ডারসন ও লুক রঞ্চি। ষষ্ঠ উইকেটে তাদের এ জুটিতে আসে ৭৩ রান। ইনিংসের শেষ বলে আউট হওয়ার আগে মাত্র ৪৬ বলে ৭৫ রানের ঝোড়ো ইনিংস খেলেন অ্যান্ডারসন। ইনিংসে ৮টি চার ও ২টি ছক্কা মারেন তিনি। মাত্র ১৯ বলে ৪টি চারে ২৯ রানে অপরাজিত থাকেন রঞ্চি।

শ্রীলঙ্কার বোলারদের মধ্যে মেন্ডিস ও লাকমাল সর্বোচ্চ ২টি করে উইকেট নেন। এ ছাড়া নুয়ান কুলাসেকারা ও হেরাথের ঝুলিতে জমা পড়ে একটি করে উইকেট। আর লাসিথ মালিঙ্গা ১০ ওভারে খরচ করেন ৮৪ রান!

 

sentbe-top