cosmetics-ad

খেলার সব জিনিস ফেলে দিলেন স্মিথের বাবা (ভিডিও)

smith father

বল টেম্পারিংয়ের দায়ে নিজ দেশের ক্রিকেট বোর্ড থেকে এক বছরের জন্য নিষেধাজ্ঞা পান অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথ। ছেলের এমন শাস্তি মেনে নিতে পারেননি স্মিথের বাবা পিটার। তাই ক্ষোভ-দুঃখে স্মিথের ক্রীড়া সামগ্রী বাড়ির গ্যারেজে ফেলে দেন পিটার।

অস্ট্রেলিয়ার গণমাধ্যম ‘সেভেন নিউজ’ নামে একটি চ্যানেলের ভিডিও ফুটেজে দেখা গিয়েছে স্মিথের সব ক্রীড়া সামগ্রী গাড়ির গ্যারেজে ফেলে দিচ্ছেন পিটার, আর বলছেন, ‘সে ঠিক হয়ে যাবে, সে লড়াই করবে, সে লড়াই করবে।’

কেপটাউনে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সিরিজের তৃতীয় টেস্টের তৃতীয় দিন বল টেম্পারিং করেন অস্ট্রেলিয়ার তরুণ ওপেনার ক্যামেরুন ব্যানক্রফট। সেটি ভিডিও ফুটেজের মাধ্যমে সহজেই ধরে ফেলেন ম্যাচ পরিচালনাকারীরা। কিন্তু এ কাণ্ড আড়াল করেনি অস্ট্রেলিয়া। ওই দিনই সংবাদ সম্মেলনে বল টেম্পারিংয়ের কথা অকপটে স্বীকার করেন ব্যানক্রফট। তাতে সায় দেন পাশেই বসে থাকা স্মিথও।

পরবর্তীতে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার (সিএ) তদন্তে বেরিয়ে আসে ওই ম্যাচের অধিনায়ক স্মিথ ও সহ-অধিনায়ক ওয়ার্নারের পরিকল্পনাতেই বল টেম্পারিং করেন ব্যানক্রফট। তাই স্মিথ-ওয়ার্নারকে এক বছরের জন্য এবং ব্যানক্রফটকে নয় মাসের জন্য নিষিদ্ধ করেন সিএ।

দেশে ফিরে সংবাদ সম্মেলনে কান্নারত অবস্থায় অস্ট্রেলিয়ানদের কাছে দুঃখ প্রকাশ করার পাশাপাশি ক্ষমাও চান স্মিথ। তখন স্মিথের পাশে ছিলেন তার বাবা পিটার। পাশে থেকে ছেলেকে সান্তনা দিয়েছেন, আর বলেছেন, ‘সবকিছুই ঠিক হয়ে যাবে।’