sentbe-top

বাংলাদেশে এলএনজি টার্মিনাল নির্মাণে আগ্রহী দক্ষিণ কোরিয়া

বাংলাদেশে এলএনজি (তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস) টার্মিনাল নির্মাণে আগ্রহী দক্ষিণ কোরিয়ার কিছু প্রতিষ্ঠান।কন্সট্রাকশন খাতেও কয়েকটি কোম্পানি বর্তমানে বাংলাদেশে কাজ করছে। গুণগত মান সম্পন্ন কাজ করতেই আগ্রহী দক্ষিণ কোরিয়া।

গত বৃহস্পতিবার (১৩ এপ্রিল) বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদের সঙ্গে বাংলাদেশে নিযুক্ত দক্ষিণ কোরিয়ার রাষ্ট্রদূত এএইচএন সেওং ডো সচিবালয়ে প্রতিমন্ত্রীর অফিস কক্ষে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন। এ সময় রাষ্ট্রদূত এই আগ্রহের কথা জানান। তারা পারস্পারিক স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করেন।

প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বলেন, ‘বাংলাদেশে বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে যে  বিশাল কর্মযজ্ঞ ও উন্নয়ন কার্যক্রম  চলছে, তাতে দক্ষিণ কোরিয়ার অংশগ্রহণ তুলনামূলকভাবে কম। পারস্পারিক সহযোগিতা বাড়িয়ে দক্ষিণ কোরিয়া আমাদের উন্নয়নে অংশীদার হতে পারে। বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপন, টার্মিনাল স্থাপন, আইটি খাত, সঞ্চালন ব্যবস্থা, স্মার্ট  মিটার, স্মার্ট গ্রিড, সোলার ইত্যাদি খাতে বাংলাদেশে কাজ করার সুযোগ রয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ার।’

দক্ষিণ কোরিয়ার রাষ্ট্রদূত বলেন, ‘দক্ষিণ কোরিয়ার কিছু প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশের বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে কাজ করতে আগ্রহী। এস.কে. কোম্পানি এলএনজি টার্মিনাল নির্মাণে আগ্রহী। কন্সট্রাকশন কাজেও কয়েকটি কোম্পানি বাংলাদেশে কাজ করছে। গুণগত মান সম্পন্ন কাজ করতে আমরা আগ্রহী।’ আগামী সেপ্টেম্বরে প্রতিমন্ত্রীকে দক্ষিণ কোরিয়া সফরের জন্য আমন্ত্রণ জানান তিনি ।

sentbe-top