sentbe-top

যশোরে প্রশিক্ষণ বিমান বিধ্বস্ত, দুই পাইলট নিহত

pilotযশোরে বিমান বাহিনীর একটি প্রশিক্ষণ বিমান (কে-৮ডব্লিউ) বিধ্বস্তে দুই পাইলট মারা গেছেন। তারা হলেন- স্কোয়ার্ডন লিডার মো. সিরাজুল ইসলাম ও এনায়েত কবির পলাশ। রোববার রাত ৯টার দিকে যশোরের একটি বাওরে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়। আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদফতর (আইএসপিআর) সহকারী পরিচালক রেজাউল করিম শাম্মী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, মরদেহ ও বিধ্বস্ত বিমান উদ্ধার তৎপরতা চলছে। ঘটনা তদন্তে উচ্চ পর্যায়ের কমিটি গঠন করা হবে। বিধ্বস্ত বিমানের উদ্ধার কাজ চলছে।

যশোর বিমান বন্দরের ব্যবস্থাপক আলমগীর পাঠান বলেন, রোববার রাত ৯টা ২০ মিনিটে যশোরের মতিউর রহমান বিমান ঘাঁটি থেকে একটি প্রশিক্ষণ বিমান উড্ডয়ন করে। এর কিছুক্ষণ পর সেটি যশোর সদর উপজেলার ফরিদপুর গ্রামের বুকভরা বাওড়ের মধ্যে পড়ে যায়। বিমানটিতে দুজন পাইলট ছিলেন।

এদিকে, বিকট শব্দে বিমান বুকভরা বাওড়ের মধ্যে পড়ে যাওয়ায় এলাকাবাসীও সেখানে ভিড় করেন। বাওড়ের পাড় জুড়ে এলাকাবাসী অবস্থান নেন। আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরাও এলাকায় অবস্থান নিয়েছেন। রাত হলেও এলাকার শত শত মানুষ বাওড়ের পাড়ে ভিড় করেছেন।

চান্দুটিয়া বাজারের ব্যবসায়ী শ্যামল কুমার সিংহ জানান, রাত সাড়ে ৯টার দিকে তিনি বাজারে ছিলেন। এ সময় প্রচণ্ড একটি শব্দ শুনে তারা অনেকেই আরিচপুর বাজার সংলগ্ন বুকভরা বাওড়ে ছুটে যান। দূর থেকে তারা দেখতে পান একটি বিমানের কিছু অংশ বাওড় পাড় থেকে প্রায় ৩শ’ মিটার দূরে পানিতে ভাসছে। কেউ কেউ নৌকা নিয়ে বিমানটির কাছাকাছিও গেছেন। গোটা এলাকা পেট্রোলজাতীয় জ্বালানির গন্ধে ভরে উঠেছে। প্রচণ্ড বৃষ্টি আর অন্ধকারের কারণে কোনোকিছু ঠিকভাবে দেখাও যাচ্ছে না।

sentbe-top