sentbe-top

‘বারবার সুযোগ আসবে না’

amiratএক মাসের মধ্যে আমিরাতে অবস্থানরত সব অবৈধ প্রবাসীদের বৈধ হয়ে দেশের ইমেজ বৃদ্ধিতে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন দেশটিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত ডা. মোহাম্মদ ইমরান। তিনি জানান, বারবার সুযোগ নাও আসতে পারে। এবার বৈধ না হলে কারো কিছু করার থাকবে না বলে তিনি মন্তব্য করেন।

আমিরাতে অবৈধভাবে বসবাসকারী অভিবাসীদের বৈধ হয়ে দেশটিতে অবস্থান ও নিজ নিজ দূতাবাস থেকে আউট পার্মিট নিয়ে নিজ দেশে চলে যাওয়ার জন্য আমিরাত সরকার-যে সাধারণ ক্ষমা ঘোষণা করেছেন তা ২য় দফায় আগামী ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বৃদ্ধি করা হয়েছে।

২ ডিসেম্বর সংযুক্ত আরব আমিরাতের জাতীয় দিবস উপলক্ষে ও বাংলাদেশ থেকে অনেক প্রবাসীর পাসপোর্ট না পাওয়ায় আমিরাতে নিযুক্ত বাংলাদেশি রাষ্ট্রদূতের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে এই সময়সীমা বাড়ানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন রাষ্ট্রদূত।

bangladesh-ambassador২য় দফায় একমাস সময় বৃদ্ধি করায় আমিরাত সরকারকে ধন্যবাদ জানান বাংলাদেশি প্রবাসীরা। গত ২ ডিসেম্বর আমিরাতের স্বাধীনতা দিবস থাকায় বাংলাদেশের পক্ষ থেকে দেশটির সরকারকে অভিনন্দন জানান রাষ্ট্রদূত এবং বাংলাদেশের আবেদনের পরিপেক্ষিতে সাধারণ ক্ষমার একমাস সুযোগ করে দেয়ায় তিনি আমিরাত সরকারের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। ডেমু ও পুলিশ ভেরিফিকেশনে আটকে থাকা পাসর্পোট দ্রুত আমিরাতে পাঠানোর জন্য প্রবাসীরা সরকারের প্রতি বিশেষ অনুরোধ করেন।

উল্লেখ্য, বাড়ানো সময় কাজে লাগিয়ে দেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করে প্রবাসে বৈধভাবে বসবাসের সুযোগ নিতে সব অবৈধ প্রবাসীদের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছেন বাংলাদেশ দূতাবাস। মধ্যপ্রাচ্যের দ্বিতীয় এই শ্রমবাজারে প্রায় ছয় লাখেরও বেশি বাংলাদেশি রয়েছেন। যাদের অনেকে নানা কারণে দেশটিতে অবৈধ হয়ে গিয়েছিলেন। যার বড় একটি কারণ হলো পাসপোর্টের মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়া।

সৌজন্যে- জাগো নিউজ

sentbe-top