Search
Close this search box.
Search
Close this search box.

চিকিৎসক আকাশের আত্মহত্যায় স্ত্রী মিতু তিন দিনের রিমান্ডে

akash-mituচট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের চিকিৎসক মোস্তফা মোরশেদ আকাশের আত্মহত্যায় প্ররোচনার অভিযোগে গ্রেফতার স্ত্রী তানজিলা হক চৌধুরী মিতুর তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। সোমবার (৪ ফেব্রুয়ারি) চট্টগ্রাম মহানগর হাকিম আল ইমরান খান এ আদেশ দেন।

নগর পুলিশের সহকারী কমিশনার (প্রসিকিউশন) কাজী মো. শাহাবুদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘কারাগারে থাকা তানজিলা হক চৌধুরী মিতুকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সাত দিনের রিমান্ডে নেয়ার আবেদন করেছিলেন তদন্তকারী কর্মকর্তা। শুনানি শেষে আদালত তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। জিজ্ঞাসাবাদের ক্ষেত্রে তদন্তকারী কর্মকর্তাকে হাইকোর্টের আদেশ অনুসরণ করার অর্থাৎ নারী কনস্টেবল রাখার নির্দেশনা দিয়েছেন আদালত।’

এর আগে গত শুক্রবার বিকেলে নগরীর চান্দগাঁও থানায় আকাশের মা জোবেদা খানম বাদী হয়ে ছেলের আত্মহত্যায় প্ররোচনার অভিযোগে তার স্ত্রী তানজিলা হক চৌধুরী মিতু ও তার বাবা-মা, এক বোন এবং দুই প্রেমিকের বিরুদ্ধে মামলা করেন। এছাড়া বৃহস্পতিবার রাত ১২টার দিকে নগরীর নন্দনকানন এলাকার এক আত্মীয়ের বাসা থেকে আটক করা হয় আকাশের স্ত্রী মিতুকে।

ডা. আকাশ চট্টগ্রামের চন্দনাইশ উপজেলার বাংলাবাজার বরকল এলাকার মৃত আব্দুস সবুরের ছেলে। তিনি এমবিবিএস শেষ করে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মেডিসিন বিভাগে কর্মরত ছিলেন। সঙ্গে এফসিপিএস পড়ছিলেন।

গত বৃহস্পতিবার ভোরে নগরীর চান্দগাঁও থানা এলাকায় নিজ বাসায় শরীরে বিষাক্ত ইনজেকশন পুশ করে আত্মহত্যা করেন। এর আগে ফেসবুকে দুটি স্ট্যাটাসে তিনি তার মৃত্যুর জন্য স্ত্রী মিতুকে দায়ী করেন এবং বিস্তারিত ঘটনার আবেকঘন বর্ণনা দেন। যেখানে তিনি স্ত্রী মিতুকে ‘চিটার’ উল্লেখ করেন এবং সর্বশেষ লেখেন ‘ভালো থেকো আমার ভালোবাসা তোমার প্রেমিকদের নিয়ে।’

সৌজন্যে- জাগো নিউজ