cosmetics-ad

বগুড়ায় দেবরের হাত ধরে উধাও প্রবাসীর স্ত্রী

love
প্রতীকী ছবি

২ সন্তানের জননী এক প্রবাসীর স্ত্রী দেবরের হাত ধরে উধাও হয়ে গেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার কিচক ইউনিয়নের শোলাগাড়ী নয়াপাড়া গ্রামে। প্রবাসীর অভিযুক্ত স্ত্রীর নাম মাজেদা এবং তার দেবরের নাম আবু হাসান। স্বামী প্রবাসে থাকায় ও পাশাপাশি বসতবাড়ি হওয়ার সুবাদে তাদের মাঝে অনৈতিক সম্পর্ক গড়ে ওঠে বলে জানিয়েছে গ্রামবাসী।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার কিচক ইউনিয়নের শোলাগাড়ী নয়াপাড়া গ্রামের মোঃ বোরহান আলী নিজের সুন্দরী স্ত্রী মাজেদা ও ২ সন্তান রেখে এক বছর আগে জীবিকার তাগিদে বিদেশে যান। এর মধ্যে পাশাপাশি বসতবাড়ি হওয়ার সুবাদে একই গ্রামের প্রতিবেশী হাজী ওসমান আলীর ছেলে আবু হাসান প্রবাসীর স্ত্রী মাজেদার সাথে অনৈতিক প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে।

তাদের অবৈধ প্রেমের সম্পর্কটি গ্রামবাসীর নজরে আসলে এবং তাদের প্রেম কাহিনী এলাকায় জানাজানি হয়ে গেলে গত ১৯ জুন বুধবার সকালে মাজেদা তার ২ সন্তান রেখে দেবর আবু হাসানের হাত ধরে পালিয়ে যায়।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত দেবর আবু হাসানের মা ও বড় ভাই অ্যাড. মোঃ নজরুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানান, আবু হাসান আগে থেকেই বিবাহিত। তার স্ত্রী পরিবার আছে। বিষয়টি আইনগত ভাবে ব্যবস্থা গ্রহণের প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে বলে তারা জানান। আবু হাসানের মা জানান, ঘটনার দিন বুধবার সকালে বিদ্যুৎ বিল দেয়ার কথা বলে বাড়ি থেকে রেড়িয়েছে। এরপর আর ফিরেনি।

এ বিষয়ে শোলাগাড়ী গ্রামের অনেকেই দুঃখ প্রকাশ করে জানান, গত দেড় বছরে শুধু এই গ্রামেই একেরপর এক অনৈতিক অবৈধ সম্পর্কে ৮থেকে ১০ পরিবারে এমন হীন ঘটনা ঘটেছে। সামাজিক ভাবে দায়বদ্ধতা ও ধর্মীয় মূল্যবোধের অভাবে এসব ঘটনা ঘটে বলে অভিযোগ তাদের।

সৌজন্যে- নয়া দিগন্ত