cosmetics-ad

পাকিস্তানের ধাওয়া খেয়ে আফগানিস্তানে গিয়ে রক্ষা ভারতীয় বিমানের

jet

ভারতীয় একটি বিমানকে মাঝ আকাশে ধাওয়া দিয়েছে পাকিস্তানের বিমানবাহিনী। সেপ্টেম্বরের শেষের দিকে নয়াদিল্লি থেকে কাবুলগামী স্পাইসজেটের একটি বিমান ওই ধাওয়ার মুখে পড়ে বলে ভারতীয় কর্তৃপক্ষ স্বীকার করেছে।

সিভিল অ্যাভিয়েশন কর্তৃপক্ষের বরাতে এনডিটিভির খবরে বলা হয়, গত ২৩ সেপ্টেম্বর ১২০ জন যাত্রী নিয়ে নয়াদিল্লি থেকে কাবুলের উদ্দেশে স্পাইসজেটের একটি বিমান যাত্রা করেছিল। পাকিস্তানের আকাসীমায় ঢুকে পড়ায় মাঝ আকাশেই তাদের পথ রুদ্ধ করে দেশটির বিমানবাহিনী। এরপর বিমানটি পাকিস্তানের আকাশসীমার বাইরে যাওয়া পর্যন্ত তাদের ধাওয়া করা হয়।

বৃহস্পতিবার ডিরেক্টরেট জেনারেল অফ সিভিল অ্যাভিয়েশন (ডিজিসি) একথা জানিয়েছে বলে এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়। ডিজিসিএ-র তরফে জানানো হয়েছে, অনেকটা সংশয় নিয়েই বোয়িং ৭৩৭ বিমানটি পাকিস্তা‌নের আকাশসীমার মধ্যে ঢুকেছিল। এরপরই পাকিস্তানি বিমান তাদের ধাওয়া দেয়। পাকিস্তান বিমান বাহিনীর এফ-১৬ বিমান ভারতীয় বিমানটিকে নিচু হতে বলে।

এসময় স্পাইসজেট বিমানের পাইলট পাক বিমান বাহিনীকে বোঝাতে সক্ষম হয় যে তাদের বিমানটি ‘বাণিজ্যিক বিমান’। এরপর স্পাইসজেট বিমানটিকে চলার পথ অব্যাহত রাখার অনুমতি দেয়া হয় এবং তাদের আফগান আকাশসীমায় পৌঁছানো পর্যন্ত সঙ্গও দেয় পাক বিমানটি। বিষয়টি স্পর্শকাতর হওয়ার কারণে বেশি তথ্য জানাতে রাজি হয়নি ডিজিসিএ। স্পাইসজেট কর্তৃপক্ষও এ নিয়ে কোনও মন্তব্য করতে রাজি হয়নি।

গত ২৬ ফেব্রুয়ারি ভারতীয় বিমানবাহিনী পাকিস্তানের বালাকোটে বিমান হামলা চালানোর পর থেকে ভারতের জন্য আকাশপথ বন্ধ করে দেয় পাকিস্তান। পরিস্থিতি শান্ত হলে জুলাই মাসে আবার আংশিকভাবে তা খুলে দেয়া হয়। এরপর কাশ্মীর নিয়ে আবার উত্তেজনা সৃষ্টি হলে ভারতের সঙ্গে বানিজ্যিক সম্পর্ক ও আকাশপথ পুরোপুরি বন্ধ করে দেয় পাকিস্তান।

গত মাসে ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি যুক্তরাষ্ট্র যাওয়ার সময় এবং রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ আইসল্যান্ড যাওয়ার সময় তাদের পাকিস্তানের আকাশপথ ব্যবহার করতে দেয়া হয়নি। পাক পররাষ্ট্রমন্ত্রী শাহ মাহমুদ কোরেশি জানিয়েছেন, ভারতের সাম্প্রতিক ব্যবহারের কারণে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।