cosmetics-ad

করোনা মোকাবিলায় সেনাবাহিনী নামাচ্ছে জাপান-দক্ষিণ কোরিয়া

korea-corona
ফাইল ছবি

করোনাভাইরাস মহামারি মোকাবিলায় এবার সেনাবাহিনী নামাতে যাচ্ছে জাপান ও দক্ষিণ কোরিয়া। গত কয়েকদিনের সংক্রমণ তথ্য বিশ্লেষণ করে দুই দেশেই তৃতীয় ঢেউ ছড়িয়ে পড়েছে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন বিশেষজ্ঞরা। তাই এবার মারণ রোগের থাবা গুঁড়িয়ে দিতে সেনাতেই ভরসা রাখছে সিউল ও টোকিও। কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা এখবর জানিয়েছে।

জাপানি সংবাদমাধ্যমের খবর অনুসারে, করোনা মহামারির প্রকোপ সবচেয়ে বেশি পড়েছে জাপানের হক্কাইদো ও ওসাকা অঞ্চলে। সেখানে রোগীর চাপে রীতিমতো নুয়ে পড়েছে হাসপাতালগুলো। পর্যাপ্ত সংখ্যায় স্বাস্থ্যকর্মী না থাকায়, কোভিড টেস্ট ও চিকিৎসায় হিমশিম খেতে হচ্ছে প্রশাসনকে। অমানুষিক চাপের মুখে পড়েছেন স্বাস্থ্যকর্মীরাও। তাই সেখানে সেনাবাহিনীর নার্স ও ডাক্তারদের মোতায়েন করতে চলেছে প্রধানমন্ত্রী ইওশিহিদে সুগার সরকার।

করোনার দাপটে কাঁপছে দক্ষিণ কোরিয়াও। সংক্রমণের শুরুর দিকে লকডাউন জারি করেনি দক্ষিণ কোরিয়া। তারা আক্রান্তদের সংস্পর্শে আসা ব্যক্তিদের শনাক্ত, পরীক্ষা ও কোয়ারেন্টিনে থাকায় অগ্রাধিকার দেয়। তবে তৃতীয় ঢেউয়ের সময় দেশটির সরকার সমালোচনার মুখে পড়েছে।

সোমবার করোনা মোকাবিলায় বিবৃতি জারি করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট মুন জায়-ইনের মুখপাত্র চুং ম্যান-হো। তিনি জানান, করোনা সংক্রমণের উৎস খুঁজতে ও অসুস্থদের চিকিৎসায় সমস্ত শক্তি ও ক্ষমতা প্রয়োগের নির্দেশ দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট মুন। এই মহামারীর মোকাবিলায় সেনাবাহিনীকে ময়দানে নামানোর নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।