cosmetics-ad

ব্যাটে-বলে দুর্দান্ত মাশরাফি

mashrafe

ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের দ্বিতীয় রাউন্ডে আবাহনী লিমিটেডকে দারুণ এক জয় এনে দিয়েছেন মাশরাফি বিন মর্তুজা। টাইগার দলের ওয়ানডে অধিনায়ক আজ সাভারের বিকেএসপির তিন নাম্বার মাঠে ব্যাটে-বলে দুই বিভাগেই ঝড় তুলেছেন। তার দুর্দান্ত অলরাউন্ড পারফরম্যান্সকে ভর করেই কলাবাগান ক্রীড়া চক্রকে ৩৬ রানে হারিয়েছে আবাহনী।

দলের বিপর্যয়ে ব্যাট করতে নেমে ঝড়ো ফিফটি, পরে বল হাতে চার উইকেট। অলরাউন্ডার মাশরাফি বিন মর্তুজার নৈপুণ্যে আবাহনীর কাছে পেরে উঠেনি কলাবাগান ক্রীড়া চক্র।

শুক্রবার বিকেএসপিতে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচে আবাহনীর করা ২১৭ রানের জবাবে ১৮১তেই গুটিয়ে গেছে কলাবাগান। ব্যাট হাতে ৬৭ রান করার পর ৪৯ রানে ৪ উইকেট নিয়ে ম্যাচ সেরা মাশরাফি।

টস হেরে আগে ব্যাটিং পাওয়া আবাহনী শুরু থেকেই ধুঁকছিল। দুই ওপেনার এনামুল হক বিজয় ও সাইফ হাসান দ্রুতই ফিরে যান। ওয়ানডাউনে নামা নাজমুল হোসেন শান্তর ব্যাট থেকে এসেছিল ফিফটি। অপরপ্রান্তে চলে উইকেট পতনের মিছিল। ১০৫ রানে ৬ উইকেট হারানোর পর টেস্টে স্কোয়াড থেকে প্রিমিয়ার লিগ খেলতে যাওয়া মোসাদ্দেক হোসেন সৈকতের সঙ্গে জুটি বাধেন মাশরাফি। তাদের ৯৮ রানের জুটি ভাঙে মোসদ্দেকের বিদায়ে। ৭৩ বলে ৪০ রান করে আউট হন চট্টগ্রাম টেস্ট খেলা মোসাদ্দেক। মাশরাফিও থেমেছেন খানিক পরই। তবে এরমধ্যেই করে ফেলেন ৫৪ বলে ৬৭ রানের ইনিংস। ৩ চারের সঙ্গে মাশরাফি মেরেছেন ৫টি ছক্কা।

২১৮ রানের মামুলি লক্ষ্যে খেলতে নেমেও মাশরাফির পেসের ঝাঁজে কাঁপতে থাকে কলাবাগান। ৩৩ রানে ৩ উইকেট খুইয়ে মাজা ভাঙ্গা দলকে টানতে পারেননি মোহাম্মদ আশরাফুলও। ওয়ানডে মেজাজের বিপরীতে ৭১ বলে ২৫ করে ফেরেন তিনি। কলাবাগান ১৮১ পর্যন্ত যেতে পেরেছে মুক্তার আলির ব্যাটে। এই অলরাউন্ডার রান আউট হওয়ার আগে করেছেন ৩৯ বলে ৪০ রান।