কিমের সঙ্গে বৈঠকের সময় ও স্থান নির্ধারিত হয়েছে : ট্রাম্প

trump-kim

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উনের সঙ্গে তার আসন্ন বৈঠকের সময় ও স্থান নির্ধারিত হয়েছে। শিগগিরই এ সংক্রান্ত ঘোষণা দেয়া হবে বলে তিনি জানিয়েছেন।

শুক্রবার টেক্সাসের উদ্দেশ্যে হোয়াইট হাউজ ত্যাগের প্রাক্কালে ট্রাম্প সাংবাদিকদের বলেন, আমরা একটি তারিখ ও একটি স্থান নির্ধারণ করে ফেলেছি। বিষয়টি শিগগিরই ঘোষণা করা হবে।

এ সম্পর্কে ট্রাম্প সাংবাদিকদের বলেন, উত্তর কোরিয়ায় আটক মার্কিন নাগরিকদের মুক্ত করার প্রশ্নে অনেক ঘটনা ঘটে গেছে। এ বিষয়ে উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে ব্যাপক আলোচনা হয়েছে বলেও তিনি জানান।

তিনি আরও বলেন, আমি গতকালও যেমনটি বলেছি, অপেক্ষায় থাকুন। অনেক ভালো কিছু ঘটতে যাচ্ছে।”

গত ২৭ এপ্রিল চির প্রতিদ্বন্দ্বী দুই প্রতিবেশী দেশ উত্তর ও দক্ষিণ কোরিয়ার শীর্ষ নেতারা সীমান্তবর্তী পানমুনজম গ্রামে ঐতিহাসিক বৈঠকে মিলিত হন। তারা কোরীয় উপদ্বীপকে পরমাণু অস্ত্রমুক্ত করার পাশাপাশি ওই উপদ্বীপে স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠা করতে সম্মত হন।

ওই বৈঠকের আগে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প সতর্ক করে দিয়ে বলেছিলেন, পিয়ংইয়ং যদি তার পরমাণু অস্ত্র ধ্বংস করতে রাজি হয়তাহলেই কেবল তার প্রশাসন উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে আলোচনায় বসবে।

উত্তর কোরিয়া এর আগে কোরীয় উপদ্বীপে আমেরিকা ও দক্ষিণ কোরিয়ার যৌথ সামরিক মহড়ার তীব্র নিন্দা জানিয়ে এ মহড়াকে পিয়ংইয়ংয়ের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণার শামিল বলে উল্লেখ করে আসছিল। এ মহড়া বন্ধ না হলে পরমাণু অস্ত্র পরীক্ষা বন্ধ হবে না বলেও জানাচ্ছিল উত্তর কোরিয়া। কিন্তু গত ২৭ এপ্রিল দুই কোরিয়ার শীর্ষ নেতাদের বৈঠকে পিয়ংইয়ংয়ের নীতিতে বড় ধরনের পরিবর্তনের আভাস পাওয়া যায়।