cosmetics-ad

তামিমের সেঞ্চুরি, ২০০ পেরিয়ে বাংলাদেশ

tamim

সাকিব-তামিম বাংলাদেশের ভরসার প্রতীক। এ দুজনের ব্যাট কথা বললে হাসে পুরো বাংলাদেশ। গায়নায় ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষেও এর ব্যতিক্রম ঘটেনি। তামিম ইনিংসের শুরু থেকে মাঠে থাকলেও সাকিব নামেন এক উইকেট খোয়ানোর পর। সাকিবও শুরু থেকেই মাঠে ছিলেন বলা যায়, কারণ দলীয় এক রানের মাথায় আনামুল ফিরে গেলে মাঠে আসেন সাকিব।

শুরুতেই আনামুলের উইকেট হারিয়ে টেস্ট সিরিজের মতো ভরাডুবির আভাস পাওয়া গেলেও শেষ পর্যন্ত বাঁচিয়েছেন সাকিব-তামিম। এ দুজন উইন্ডিজ পেস আক্রমণকে রুখে দিয়েছেন বীরের মতোই। দুজনেই সেঞ্চুরি করে নাম লিখিয়েছেন রেকর্ড বুকে।

তামিম ক্যারিয়ায়রের ১০ম সেঞ্চুরি পেলেও মাত্র তিন রানের জন্য সেঞ্চুরি থেকে বঞ্চিত হন সাকিব আল-হাসান। রেকর্ড জুটিতে এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত বাংলাদেশের সংগ্রহ দুই উইকেট হারিয়ে ২১১ রান। ১৪৬ বলে তামিম তিন অঙ্কের ঘরে পৌঁছান।

বাংলাদেশ ও উইন্ডিজের মধ্যকার ওয়ানডেতে দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে সর্বোচ্চ রানের জুটি ছিল ১১১ রানের। লেন্ডল সিমন্স ও মারলন স্যামুয়েলস মিলে ২০১১ সালে বাংলাদেশের বিপক্ষে গড়েছিলেন রেকর্ডটি। যা ২০১৮ সালের উইন্ডিজ সিরিজের প্রথম একদিনের ম্যাচেই ভেঙ্গে দিলেন সাকিব-তামিম জুটি। আজ এ দুজনের জুটিতেই রান আসে ২০০ রান পার করে বাংলাদেশ।

তামিম-সাকিব শুরুটা ধীরে ধীরে করলেও ওভার বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বাড়িয়েছেন রানের গতি। সাকিব ছয় বার বল বাউন্ডারির বাইরে পাঠালেও তামিম পাঠান সাত বার। সঙ্গে ছিল একটি দৃষ্টিনন্দন ছয়ের মার।

গায়নায় ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন টাইগার অধিনায়ক। দলীয় ১ রানের মাথায় কোনো রান না করেই সাজঘরে ফিরে যান ওপেনার আনামুল হক বিজয়। আনামুল ফিরে গেলে মাঠে নামেন সাকিব আল-হাসান।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দুই টেস্ট সিরিজের দুটিতেই লজ্জাজনক হারের পর এবার ওয়ানডে সিরিজ খেলতে নামে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। গায়ানায় বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় প্রথম ওয়ানডে ম্যাচটি শুরু হয়।

তবে চার ওভার চার বল খেলার পর বৃষ্টি হানা দেয় গায়নায়। ভারি বৃষ্টির কারণে খেলা বন্ধ রাখতে বাধ্য হন আম্পায়াররা। বৃষ্টি থামলে খেলা আবার শুরু হয়।