sentbe-top

অবসরের বয়স ৬০ করতে কোরিয়ার সরকার এবং বিরোধীদলের ঐক্যমত্য

অনলাইন প্রতিবেদক, ২৪ এপ্রিল, ২০১৩:

দক্ষিণ কোরীয় শ্রমিক-কর্মচারীদের চাকুরীর বয়সসীমা ৬০ বছরে উন্নীত করার ব্যাপারে প্রাথমিকভাবে একমত হয়েছে ক্ষমতাসীন ও বিরোধীদলগুলো। ২০১৬ সালের শুরুর দিকে এটি কার্যকর করা হতে পারে। সোমবার জাতীয় সংসদের একটি সূত্র খবরটি নিশ্চিত করেছে। বর্তমানে দক্ষিণ কোরিয়ায় অবসরের কোন আইনগত বয়স না থাকলেও সব সরকারি ও বেশীরভাগ বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে ৫৬-৫৮ বছরের মধ্যে কর্মীদের অবসর দেয়া হয়। চাকুরীর বয়সসীমা বৃদ্ধির বিষয়টি গত ডিসেম্বরে অনুষ্ঠিত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ক্ষমতাসীন স্যানুরী পার্টি ও প্রধানবিরোধী জোট ডেমোক্র্যাটিক ইউনাইটেড পার্টি উভয়েরই নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি হওয়ায় এব্যাপারে ঐক্যমত্য প্রত্যাশিতই ছিল। তবে উভয় দলের কর্মকর্তারা বলছেন মঙ্গলবার জাতীয় সংসদের শ্রম ও পরিবেশ বিষয়ক কমিটির বৈঠকে বিষয়টি চূড়ান্ত অনুমোদন পাওয়ার আগে এটি নিয়ে আরও বিস্তারিত আলোচনা প্রয়োজন।

প্রস্তাবিত নীতিমালা অনুসারে ন্যূনতম ৩০০ কর্মচারী আছে এমন পাবলিক ও প্রাইভেট প্রতিষ্ঠানসমূহকে ২০১৬ সালের শুরু থেকে বাধ্যতামূলকভাবে এ আইন মানতে হবে। বাকিরা ২০১৭ সাল থেকে এ নীতিমালা কার্যকর করবে। তবে বড় বড় ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানগুলো এ আইনের ফলে কোনভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে কিনা সেটা খতিয়ে দেখা হবে।

অবসরের বয়স বাড়ানোর বিষয়টি দীর্ঘদিন ধরেই দক্ষিণ কোরিয়ায় একটি অন্যতম আলোচনার ইস্যু হয়ে আছে। অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি আরও তরান্বিত করার লক্ষ্যে অভিজ্ঞ কর্মীদের বেশী সময় কাজে লাগানো ও পেনশন ফান্ডের উপর চাপ কমাতে এ দাবীর পক্ষে যেমন মত রয়েছে তেমনি ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানসমূহের ব্যালান্স শীটে নেতিবাচক প্রভাব পড়া ও তরুণ প্রজন্মের কাজের সুযোগ কমে যাওয়ার আশঙ্কায় এর বিরুদ্ধেও মত দিচ্ছেন অনেকে।

sentbe-top