স্যামসাংয়ের সি-ল্যাবে যা তৈরি হচ্ছে

samsung-c-labচলতি মাসের ৮ তারিখে যুক্তরাষ্ট্রের লাস ভেগাসে শুরু হচ্ছে অন্যতম প্রযুক্তি উৎসব কনজুমার ইলেকট্রনিক শো ২০১৮। বার্ষিক এ অনুষ্ঠান উপলক্ষে সি-ল্যাব ইনকিউবেটর কর্মসূচির অধীনে নতুন তিনটি প্রকল্পের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেবে দক্ষিণ কোরিয়ার প্রতিষ্ঠান স্যামসাং। এগুলো হচ্ছে ফুসফুসের ক্ষতি ঠেকানোর যন্ত্র, দৃষ্টিপ্রতিবন্ধীদের সাহায্যকারী স্মার্ট গ্লাস ও সহজে স্থানান্তরযোগ্য স্মার্ট স্পিকার।

ফুসফুসের ক্ষতি ঠেকানোর প্রকল্পটির নাম গোব্রেথ। এর জন্য বানানো হয়েছে ইনহেলারের মতো সহজে বহনযোগ্য একটি যন্ত্র। এটি এমনভাবে তৈরি, যা মোবাইল অ্যাপের সঙ্গে যুক্ত করে ফুসফুসের সমস্যায় আক্রান্ত রোগীরা দ্রুত সেরে ওঠার নির্দেশনা পাবেন। ফলে রোগীর সেরে ওঠার প্রক্রিয়া পর্যবেক্ষণ করতে পারবেন চিকিৎসক।

সিইএসে রেলুমিনো নামের স্মার্ট গ্লাসের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেবে প্রতিষ্ঠানটি, যা দৃষ্টিপ্রতিবন্ধীদের পড়ার বা কোনো কিছু দেখার সুবিধা দেবে। এ চশমা ফোনের সঙ্গে কাজ করবে। অর্থাৎ স্মার্টফোনের ব্যাটারি ও প্রসেসর কাজে লাগাবে। ফলে চশমা হবে হালকা।

এ ছাড়া সিইএস উপলক্ষে এস-রে নামে সহজে স্থানান্তরযোগ্য স্পিকার আনছে স্যামসাং।

২০১২ সালে সি-ল্যাব নামের এই কর্মসূচি চালু করে স্যামসাং। এতে কর্মীরা তাঁদের স্বাভাবিক চাকরির পাশাপাশি তাঁদের ভালো লাগা প্রকল্পগুলো নিয়ে কাজ করতে পারেন। এখান থেকে আসা সব পণ্য স্যামসাংয়ের আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষিত পণ্য নয়। তথ্যসূত্র : সিনেট।