sentbe-top

ইউএস বাংলার বিমানে ২০ মিনিটের ‘আতঙ্ক’

us-banglaবেসরকারী বিমান সংস্থা ইউএস বাংলার একটি বিমান কক্সবাজার বিমানবন্দরে অবতরণের আগে ২০ মিনিট আকাশে চক্কর কাটতে বাধ্য হয়। সে সময় বিমানটিতে থাকা যাত্রীদের মাঝে আতঙ্ক বিরাজ করে। ২৮ জুলাই, শনিবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে কক্সবাজার বিমানবন্দরে এ ঘটনা ঘটে।

বিমানবন্দর সূত্রে জানা গেছে, হঠাৎ বৃষ্টির কারণে রানওয়েতে নামতে না পেরে প্রায় বিশ মিনিট আকাশেই ছিল উড়োজাহাজটি। সে সময় ভেতরে থাকা প্রায় ১০০ জন যাত্রী ছিলেন উৎকণ্ঠিত। ২০ মিনিট পরে ট্রাকিফ কন্ট্রোল রুম আবারও নির্দেশনা দিলে সেটি রানওয়েতে অবতরণ করতে সক্ষম হয়। শেষ পর্যন্ত সকল যাত্রী নিরাপদেই নেমে আসেন।

ওই বিমানের যাত্রী যমুনা টিভির সাংবাদিক রিমন রহমান জানান, ‌বিমানটি ঢাকা থেকে ছাড়ার সময় হালকা বৃষ্টি ছিল। আকাশে উড়েও মাঝে মাঝে বৃষ্টি ও রোদ পেয়েছে। তবে কক্সবাজারে নামার সময় বৃষ্টি ছিল। বিমানটির ১২টা ৩৩ মিনিটে রানওয়েতে নামার চেষ্টা করছিল। অবতরণের ঘোষণা বিমান থেকে দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু হঠাৎ করেই কি যেন হয়ে যায়, আবারও আকাশে উঠে যায় বিমানটি।

সে সময় পাইলট ঘোষণা দেন রানওয়েতে পানির কারণে অবতরণ করা গেল না। পরে প্রায় ২০ মিনিট আকাশেই চক্কর দেয় বিমানটি। আকাশে থাকাকালে বিমানের যাত্রীদের মাঝে আতঙ্ক বিরাজ করতে থাকে। তারা নানা কথা বলতে শুরু করেন। কেউ কেউ বলতে থাকেন, বিমানে তেল আছে তো? কেউ আবার বলেন, কক্সাবাজার থেকে বিমানটি ঢাকায় ফিরে যাবে? কেউ বলেন, রানওয়ে যদি দেখা না যায়, তবে সার্চলাইট জ্বালিয়ে নামালেই তো হয়।

এ বিষয়ে ইউএস বাংলার জনসংযোগ কর্মকর্তা কামরুল ইসলাম বলেন, ‘আমাদের উড়োজাহাজে কোনো ধরনের সমস্যা ছিল না। এটিসির (এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোল) নির্দেশনা পাওয়ার পরই একজন পাইলট রানওয়েতে উড়োজাহাজ নামান। কিন্তু কক্সবাজারে নামার সময় কী ঘটেছিল, তা জানা নেই। এটিসি বিষয়টি ভালো করে বলতে পারবে।’

সৌজন্যে- প্রিয়.কম

sentbe-top