cosmetics-ad

‘কাতারের ওপর আরোপিত অবরোধ বেআইনি’

qatar

কাতারের সঙ্গে সৌদি নেতৃত্বাধীন চার দেশের কূটনৈতিক সম্পর্কচ্ছেদের জেরে মধ্যপ্রাচ্য সংকট সহজেই মিটছে না। যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, জার্মানির পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের দফায় দফায় মধ্যপ্রাচ্য সফরেও সমাধানে পৌঁছাতে পারছে না দ্বন্দ্বে জড়িয়ে পড়া দেশগুলো।

গত সপ্তাহে যুক্তরাষ্ট্র, জার্মানি ও ফ্রান্সের পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা মধ্যপ্রাচ্য সফর করেন। সর্বশেষ মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসনের মধ্যপ্রাচ্য সফর কোনো সমাধান ছাড়াই শেষ হয়েছে।

এরপর দুই দিনের সফরে মধ্যপ্রাচ্যে পৌঁছে ব্যস্ত সময় পার করছেন ফ্রান্সের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জিন-ইভেস লি দারিয়ান। শনিবার সৌদি আরবের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও যুবরাজের সঙ্গে সাক্ষাতের পর কাতারে পৌঁছান তিনি।

সেখানে কাতারের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকের পর রোববার কুয়েতে যান ফরাসি এই পররাষ্ট্রমন্ত্রী। কুয়েতে পৌঁছে দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী শেখ সাবাহ খালেদ আল-হামাদ আল-সাবাহ’র সঙ্গে সাক্ষাত করেছেন জিন। রোববার কুয়েতের রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা কুনা এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

কাতারের সঙ্গে প্রতিবেশি দেশগুলোর কূটনৈতিক সংকটের সমাধানে মধ্যপ্রাচ্য সফর করছেন জিন। মধ্যপ্রাচ্যের এই সংকট সমাধানে মধ্যস্থতা করছে কুয়েত।

এদিকে, যুদ্ধাপরাধ, মানবাধিকার, সন্ত্রাস ও প্রত্যর্পণ বিষয়ে আন্তর্জাতিক আইন বিশেষজ্ঞ টবি কিডম্যান বলেছেন, ‘কাতারের ওপর সৌদি আরব ও অন্য তিন দেশের আরোপিত অবরোধ ও তাদের বেঁধে দেয়া শর্তের আইনি কোনো ভিত্তি নেই।’

কাতারি দৈনিক আল-শার্ক’কে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ‘আন্তর্জাতিক আইন অনুযায়ী কাতারের বিরুদ্ধে নেয়া ওই পদক্ষেপ বেআইনি এবং তারা শাস্তিমূলক পদক্ষেপ নিয়েছে।’

সূত্র : আল-জাজিরা।