অভিষেকে হ্যাটট্রিক করে পরের ম্যাচেই বাদ

Madushankaগত জানুয়ারিতে বাংলাদেশের মাটিতে হওয়া ত্রিদেশীয় সিরিজে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক হয় শ্রীলংকার ডানহাতি পেসার শেহান মাদুশাঙ্কার। ফাইনাল ম্যাচে প্রথমবারের মতো আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে খেলতে নেমেই হ্যাটট্রিক করেছিলেন মাদুশাঙ্কা।

তার অভিষেক হ্যাটট্রিকে ৭৯ রানের জয় পায় শ্রীলংকা। জিতে নেয় ত্রিদেশীয় সিরিজের শিরোপা। তবু মাসছয়েক পরে শ্রীলংকার পরবর্তী ওয়ানডে দলে জায়গা মেলেনি ২৩ বছর বয়সী এই পেসারের। ঘরের মাঠে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের জন্য ঘোষিত স্কোয়াডে গত স্কোয়াডের ৬ জনকেই বাইরে রেখে দিয়েছে লংকান ক্রিকেট বোর্ড।

ইনজুরির কারণে অধিনায়কত্ব থেকে সরে দাঁড়ানো অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুজকে আবারো দেয়া হয়েছে অধিনায়কের দায়িত্ব। নিয়মিত অধিনায়ক দিনেশ চান্দিমাল ৪ ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ থাকায় তাকে এই সিরিজের স্কোয়াডেই রাখা হয়নি। শেহান মাদুশাঙ্কার মতোই অভিষেকে হ্যাটট্রিক করা আরেক বোলার ভানিদু হাসারাঙ্গাকেও রাখা হয়নি স্কোয়াডে।

এছাড়া স্কোয়াড থেকে বাদ পড়েছেন ডানহাতি পেসার দুশমন্থ চামিরা, অলরাউন্ডার আসিলা গুনারাত্নে, ডানহাতি পেসার নুয়ান প্রদীপ ও এক বছরের নিষেধাজ্ঞা পাওয়া দানুশকা গুনাথিলাকা। তাদের বদলে এসেছেন কাসুন রাজিথা, প্রাবাথ জয়াসুরিয়া, শেহান জয়াসুরিয়া, দাশুন শানাকা ও অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুজ।

পাঁচ ম্যাচের সিরিজের জন্য শ্রীলংকার স্কোয়াড: অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুজ, কুশল পেরেরা, ধনঞ্জয় ডি সিলভা, উপুল থারাঙ্গা, কুশল মেন্ডিস, থিসারা পেরেরা, নিরোশান ডিকভেলা, সুরাঙ্গা লাকমল, লাহিরু কুমারা, কাসুন রাজিথা, আকিলা দানাঞ্জয়া, লাকশান সান্দাকান, প্রাবাথ জয়াসুরিয়া, শেহান জয়াসুরিয়া ও দাশুন শানাকা

স্ট্যান্ডবাই: দিমুথ করুনারাত্নে, ইসুরু উদানা, নিশান পেইরিস ও জেফ্রি ভ্যান্ডারসাই