sentbe-top

শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে নেপালের ইতিহাস গড়া জয়

শেষ বলে দরকার ২ রান। নেপাল অধিনায়ক পরশ খাদকার বলে ব্যাট লাগিয়েই রানের জন্য দৌড়ালেন নেদারল্যান্ডসের ফ্রেড ক্লাসেন। বোলারের প্রান্তের উইকেট পেরিয়ে বেশিদূর যেতে পারল না সেই বল, খাদকা চিতাবাঘের গতিতে গিয়ে ধরে ফেললেন বল। উল্টো ঘুরে দারুণ এক থ্রোতে ভাঙলেন স্ট্যাম্প, উল্লাসে ভাসল পুরো নেপাল। শ্বাসরুদ্ধকর এক ম্যাচে নেদারল্যান্ডসকে ১ রানে হারিয়ে নিজেদের ইতিহাসের প্রথম ওয়ানডে জিতল নেপাল।

সিরিজের প্রথম ম্যাচে নেদারল্যান্ডসকে অল্প রানে গুটিয়ে দিলেও ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতার জন্য জয় আসেনি। দ্বিতীয় ম্যাচে টসে জিতে তাই আগে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন অধিনায়ক খাদকা। ৮৮ রানে ৫ উইকেট হারানো দলকে পথ দেখান খাদকা ও সোমপাল কামি। দুজনেই করেন হাফ সেঞ্চুরি।

৬ চার ও ২ ছয়ে খাদকা করেছেন ৫১ রান। কামি ছিলেন একটু বেশি আক্রমণাত্মক। ৫ চার ও তিন ছয়ে ৪৬ বলে করেন ৬১। শেষ পর্যন্ত ২১৬ রানের পুঁজি পায় নেপাল।

nepal

দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ের পর বল হাতেও উজ্জ্বল ছিলেন কামি। প্রথম ওভারের দ্বিতীয় বলেই তুলে নেন নেদারল্যান্ডসের প্রথম উইকেট। এরপর ড্যানিয়েল ব্রাক ও ওয়েসলি বারেসির ব্যাটে জয়ের স্বপ্ন দেখছিল নেদারল্যান্ডস। ১১৪ রানের মাথায় ব্রাক ফিরলেও অবিচল ছিলেন বারেসি, করেন হাফ সেঞ্চুরিও। ৮৯ বলে ৭১ রান করা বারেসি ফেরেন দিপেন্দ্রর বলে। এরপর দ্রুত আরও কয়েকটি উইকেট হারায় নেদারল্যান্ডস, জয়ের আশা জেগে ওঠে নেপালের।

ম্যাচটাকে শেষ ওভার পর্যন্ত নিয়ে গেছে নেদারল্যান্ডসের শেষ দুই ব্যাটসম্যান। শেষ ওভারে দরকার ছিল ৬ রান। খাদকার দারুণ বোলিংয়ে সেটা আর তুলতে পারেনি তারা। শেষ পর্যন্ত নিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতেই প্রথম জয়ের স্বাদ পেল নেপাল।

sentbe-top