Search
Close this search box.
Search
Close this search box.

ছাত্রলীগ নেতার দুই হাত ভেঙে দিলেন স্থানীয়রা

bcl-ruক্যাম্পাসের লিচু পাড়া নিয়ে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের দুই নেতাকে মারধর করেছে স্থানীয়রা। মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৯টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বেগম রোকেয়া হলের পেছনে এ ঘটনা ঘটে। আহতরা হলেন- শাখা ছাত্রলীগের তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক মাহমুদুল হাসান কানন ও উপ-আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক মেহেদী হাসান।

chardike-ad

ছাত্রলীগ নেতা কাননের দুই হাত ভেঙে গেছে ও মেহেদীর পায়ে গুরুতর জখম হয়। বর্তমানে তারা রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ৮ ও ৩১ নম্বর ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

সূত্রে জানা যায়, রাত সাড়ে ৯টার দিকে কানন ও মেহেদীসহ ছাত্রলীগের আটজন নেতাকর্মী বাগানে লিচু পাড়তে যান। বাগানটি পাহারার দায়িত্বে থাকা বেশ কয়েকজন প্রহরী তাদেরকে বাধা দেন। কানন ও মেহেদীসহ সবাই ছাত্রলীগের নেতাকর্মী পরিচয় দেয়ার একপর্যায়ে তাদের মধ্যে হাতাহাতি শুরু হয়। এতে প্রহরীরা তাদের ওপর ক্ষিপ্ত হয়ে লাঠি-বাঁশ দিয়ে সবাইকে এলোপাতাড়ি মারধর করেন।

খবর পেয়ে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা ঘটনাস্থলে রড, স্ট্যাম্প নিয়ে উপস্থিত হন। তাদের উপস্থিতি টের পেয়ে মারধরকারীরা পালিয়ে যায়। ওই সময় নেতাকর্মীরা প্রহরীদের থাকার জন্য তৈরি করা মাচার ঘরটিতে আগুন দেয়।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ফয়সাল আহমেদ রুনু বলেন, ‘ছাত্রলীগের দুই নেতাকে স্থানীয়রা মারধর করেছে। তারা এখন হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে। আমি তাদের সঙ্গে রয়েছি।’