cosmetics-ad

করোনা : মালয়েশিয়ায় ফিরতে পারছেন না হাজারো বাংলাদেশি

malaysia-bangladeshi
ফাইল ছবি

করোনা ভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে মালয়েশিয়ায় চলছে লকডাউন। আন্তর্জাতিক রুটে বিমান চলাচলও বন্ধ রয়েছে। এর ফলে শঙ্কায় রয়েছেন দেশে ছুটিতে থাকা হাজারো বাংলাদেশি। কর্মস্থল মালয়েশিয়ায় ফিরতে পারছেন না তারা। ভিসার মেয়াদও শেষ হয়ে আসছে অনেকের।  সেদেশে প্রবেশের ক্ষেত্রে বড় ধরনের জটিলতা তৈরি হতে পারে বলে মন্তব্য করেছেন অনেকে। এমন পরিস্থিতিতে সংকট উত্তরণে মালয়েশিয়া সরকারের সাথে আলোচনা করে দ্রুত পদক্ষেপ গ্রহণ করার দাবি জানিয়েছেন প্রবাসীরা।

মালয়েশিয়ায় দেশিদের পাশাপাশি ব্যাপক বিদেশি কর্মীর কর্মসংস্থান হয়েছে। বৈধ বা অবৈধ দুইভাবেই দেশটিতে কাজ করছেন অনেক বিদেশি। যদিও অবৈধদের নিয়মিত গ্রেফতার করে মালয়েশিয়া। তবে করোনা ভাইরাসের কারণে সরকারি নির্দেশনায় সবাই এখন গৃহে অবস্থান করছেন। নির্দেশনা মোতাবেক কাজে যাওয়া যাবে না।

মালয়েশিয়ার ন্যাশনাল সিকিউরিটি কাউন্সিলের পরামর্শ অনুযায়ী ১৪ দিন অর্থাৎ ১৮ মার্চ থেকে ৩১ মার্চ কোম্পানি বন্ধ থাকলেও বেতন দিতে নির্দেশ দিয়েছে সরকার এবং বেতন না দিলে শাস্তির বিধান রেখেছে।

যাদের মালয়েশিয়ার ভিসার মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়েছে বা এই সময়ের মধ্যে হবে , তাদের জন্য দুটো সুযোগ দেয়া হচ্ছে। এক, তারা নিজ দেশে চলে যেতে পারেন এবং দুই, ১৪ দিন মুভমেন্ট কন্ট্রোল অর্ডার শেষ হলেই ইমিগ্রেশনে ভিসার জন্য আবেদন করা যাবে। একইভাবে যারা টুরিস্ট ভিসায় এসেছিলেন কিন্তু ফিরে যেতে পারেননি এবং ভিসার মেয়াদ শেষ , তারা নিজ দেশে ফিরে যেতে পারেন , তবে বিমান চলাচল না থাকায় ফিরে যেতে না পারলে ১৪ দিন পর স্পেশ্যাল পাস নিয়ে পরে দেশে ফিরে যেতে পারবেন।

এ বিষয়ে হাইকমিশন থেকে প্রবাসী কর্মী, শিক্ষার্থীদের, এক্সপার্ট এবং সেকেন্ড হোম ভিসা ধারীদের উদ্বিগ্ন না হয়ে ধৈর্যের সাথে পরিস্থিতি মোকাবেলা করার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে।