cosmetics-ad

সরকারি প্রকল্পের ২৫ মেট্রিক টন চালসহ আ.লীগ নেতা ধরা

chor

জয়পুরহাটের আক্কেলপুর উপজেলার গোপীনাথপুর বাজারের একটি গোডাউনে অভিযান চালিয়ে বিভিন্ন সরকারি প্রকল্পের অধীনে বরাদ্দের ২৫.৪৪ মেট্রিক টন চালসহ আল ইসরাইল জুবেল (৪৯) নামে এক আওয়ামী লীগ নেতাকে আটক করেছে র‍্যাব। শনিবার (১১ এপ্রিল) দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে চালগুলো জব্দ করা হয়।

আটক আল ইসরাইল জুবেল গোপীনাথপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও গোপীনাথপুর পূর্ব বাজার এলাকার মৃত নজির উদ্দীন মন্ডলের ছেলে।

জয়পুরহাট র‌্যাব-৫ ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এমএম মোহাইমেনুর রশিদ জানান, আক্কেলপুর উপজেলার গোপীনাথপুর বাজারে আওয়ামী লীগ নেতা জুবেলের নিজ গোডাউনে ভিজিএফ ও ভিজিডিসহ বিভিন্ন সরকারি উন্নয়ন প্রকল্পের অধীনে বরাদ্দকৃত চাল অবৈধ উপায়ে সংগ্রহ করে মজুত করে রেখেছিলেন। খবর পেয়ে অভিযান চালিয়ে তার গোডাউন থেকে বিভিন্ন সরকারি উন্নয়ন প্রকল্পের বরাদ্দের ২৫ হাজার ৪৪০ কেজি চাল জব্দ করা হয়। তখন গোডাউন মালিককেও আটক করা হয়। এ ব্যাপারে তার বিরুদ্ধে আক্কেলপুর থানায় মামলা করা হয়েছে বলেও জানান এই র্যাব কর্মকর্তা।

অপরদিকে শনিবার ভোরে ক্ষেতলাল উপজেলার আলমপুর ইউনিয়ন পরিষদ ভবনের পার্শ্বে সুহলী গ্রামের এমদাদুল হোসেনের গুদাম থেকে সরকারের খাদ্যবান্ধব কর্মসূচি ১০ টাকা কেজি দরের ২৩ বস্তা চাল ভ্যান যোগে দুঁপচাচিয়া বাজারে বিক্রি করার উদ্দেশ্যে নিয়ে যাওয়ার পথে ক্ষেতলাল থানা পুলিশ চালগুলো উদ্ধার করে। এ সময় উপজেলার সুহলী গ্রামের আফজাল হোসেন ও আনারুল ইসলাম নামে দুই ভ্যানচালককে আটক করে পুলিশ। জিজ্ঞাসাবাদে তারা পুলিশকে বলেন, সুহলী গ্রামের এমদাদুল হোসেন ও আব্দুল মালেক চাল অন্যত্র বিক্রির উদ্দেশ্যে ভ্যান ভাড়া নিয়েছেন।

আলমপুর ইউপির চেয়ারম্যান আনোয়ারুজ্জামান তালুকদার বলেন, আলমপুর ইউনিয়নের সুবিধাভোগীদের মধ্যে খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির চাল বিক্রি করা হয়েছিল। ইমদাদুল ও মালেক নামে দুই ব্যবসায়ী সুবিধাভোগীদের কাছ থেকে ওই চাল কিনেছিলেন।

ক্ষেতলাল থানা পুলিশের পরির্দশক (তদন্ত) আবু রায়হান বলেন, সরকরি চাল কালোবাজারি করায় ইমদাদুল হক ও মালেকের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। দুজনকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। আটক দুই ভ্যানচালককে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।