cosmetics-ad

বুধবার বিক্ষোভ, বৃহস্পতিবার ২৪ ঘণ্টার হরতাল

20 alli

লাগাতার অবরোধের সঙ্গে আগামী বৃহস্পতিবার বৃহস্পতিবার ভোর ছয়টা থেকে শুক্রবার ভোর ছয়টা পর্যন্ত দেশব্যাপী ২৪ ঘণ্টার হরতাল ডেকেছে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০দলীয় জোট। এছাড়া বুধবার সারাদেশে জেলা, উপজেলা, থানা, পৌরসভা ও সকল মহানগরের থানায় থানায় বিক্ষোভ বিক্ষোভ কর্মসূচির ঘোষণা দেয়া হয়েছে।

সোমবার থেকে ৪৮ ঘণ্টা হরতালের শেষদিনে মঙ্গলবার দুপুরে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে এসব কর্মসূচির ঘোষণা দেন বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব বরকত উল্লাহ বুলু।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, “বিএনপি যুগ্ম মহাসচিব সালাহ উদ্দিন আহমেদসহ ২০ দলীয় জোটের গুমকৃত সকল বিরোধী নেতা-কর্মীদের অবিলম্বে সুস্থ ও অক্ষত অবস্থায় ফেরত দান, ২০ দলীয় জোটের কারান্তরীণ শীর্ষ নেতৃবৃন্দসহ সকল পর্যায়ের নেতা-কর্মীদের মুক্তি এবং গণগ্রেফতারসহ মামলা হামলা বন্ধ করে দেশে স্বাভাবিক অবস্থা ফিরিয়ে আনা এবং নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকার ব্যবস্থার অধীনে জাতীয় সংসদ নির্বাচনের দাবিতে চলমান অবরোধের পাশাপাশি ১ এপ্রিল বুধবার সারাদেশে জেলা, উপজেলা, থানা, পৌরসভা ও সকল মহানগরের থানায় থানায় বিক্ষোভ সমাবেশ ও মিছিল অনুষ্ঠিত হবে।

এছাড়া একই দাবিতে চলমান অবরোধের পাশাপাশি আগামী বৃহস্পতিবার ভোর ছয়টা থেকে শুক্রবার ভোর ছয়টা পর্যন্ত দেশব্যাপী ২৪ ঘণ্টার সর্বাত্মক হরতাল পালিত হবে। তবে সিটি করপোরেশন নির্বাচনের কারণে কেবলমাত্র ঢাকা ও চট্টগ্রাম মহানগরী আগামী বৃহস্পতিবার ঘোষিত হরতাল কর্মসূচির আওতামুক্ত থাকবে।

বুলু বলেন, “অবৈধ সরকারের একগুঁয়েমি ও বাকশালী নীতির কারণে দেশের ভবিষ্যৎ কোন দিকে গড়াবে তা নিয়ে গভীর উৎকণ্ঠায় দিন কাটাচ্ছে দেশের আপামর জনসাধারণ। দেশ ও বিদেশে যখন বাংলাদেশের শাসকগোষ্ঠীর অবৈধ, লুটপাট, দুর্নীতি ও রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাসী নীতি নিয়ে উদ্বেগ ও শঙ্কা প্রকাশ করা হচ্ছে তখন সরকারের বধির মনোভাব দেশকে আরো বেশী সংকটাপন্ন করে তুলছে। জনগণের সরাসরি ভোটে নির্বাচিত বিরোধী দলীয় স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদেরকে বিভিন্ন মিথ্যা ও বানোয়াট মামলায় ফাঁসিয়ে পদ থেকে অবৈধভাবে সরিয়ে তাদের স্থলে সরকারের আজ্ঞাবহ প্রতিনিধিকে সেসব পদে পদায়ণ করা হচ্ছে।”

তিনি বলেন, “বিরোধী দলীয় স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা মিথ্যা মামলায় অভিযুক্ত হয়ে কেউ কারাগারে আবার কেউবা প্রাণভয়ে আত্মগোপনে; অন্যদিকে ভোটবিহীন নির্বাচনী প্রহসনের প্রতিনিধিরা সংসদে বসে দম্ভ করছে, এটা গণতন্ত্রের সঙ্গে নিষ্ঠুর মশকরা ছাড়া আর কিছুই নয়। এই চণ্ডাল নীতি দু:শাসনেরই নমুনা এবং এটি জনগণের আশা আকাঙ্খাকেও পদদলিত করার সামিল।”

বিএনপির এব যুগ্ম-মহাসচিব বলেন,“সত্যিকার অর্থে দেশ এক মহা দুর্বিনীত শাসনের করাল গ্রাসে জর্জরিত। মুক্তিযুদ্ধের চেতনার কথা আউড়িয়ে সরকার মূলত মুক্তিযুদ্ধের চেতনার পবিত্রতাকেই নস্যাৎ করতে তৎপর। সরকারের বিভিন্ন অনৈতিক, অমানবিক ও সাংবিধানিক নীতি-আদর্শ বিবর্জিত কর্মকান্ডই দেশের মহাদুর্যোগের কারণ। ২০ দলীয় জোট এবং দেশবাসী আশা করে-সরকার আসন্ন তিন সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনকে নির্বিঘ্নে, অবাধ, সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য করতে সচেষ্ট হবে এবং নির্বাচন কমিশন নিরপেক্ষতার পরিচয় দিয়ে দেশের গণতান্ত্রিক ধারা ফিরিয়ে আনতে যথাযথ ভুমিকা পালন করবে। তার ব্যতয় ঘটলে জাতি তার অধিকার আদায়ে পথ খুঁজে নিতে বাধ্য হবে।”

বুলু বলেন, “রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাসের সুযোগে সোমবার রাজধানীর তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল বেগুনবাড়ী এলাকায় দিনের বেলায় প্রকাশ্যে ব্লগার ওয়াশিকুর রহমান বাবুকে কুপিয়ে হত্যা করার ঘটনায় ২০ দলীয় জোট গভীর উদ্বেগ করছে এবং এই নারকীয় ঘটনায় প্রকৃত দোষীদের চিহ্নিত করে তাদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছে।”

তিনি বলেন, “অন্যান্য কর্মসূচি পরিবর্তিত হলেও ২০ দলীয় জোট নেতা দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া কর্তৃক পরবর্তী ঘোষণা না দেয়া পর্যন্ত দেশব্যাপী চলমান অবরোধ কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে।”

বুলু বলেন, “বিএনপি এবং ২০ দলীয় জোটের সকল পর্যায়ের নেতা-কর্মীসহ দেশবাসীকে ঘোষিত সকল কর্মসূচি শান্তিপূর্ণভাবে পালনের জন্য ২০ দলীয় জোট নেতা দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার পক্ষ থেকে উদাত্ত আহবান জানানো হলো।” নতুনবার্তা।