cosmetics-ad

দক্ষিণ কোরিয়া থেকে কেনা হচ্ছে রেল কোচ ও ইঞ্জিন

train

প্রাথমিক ভাবে সিদ্ধান্ত হয়েছিল ইন্দোনেশিয়া থেকে ১৫০টি রেল কোচ আমদানি করা হবে। কিন্তু সেই সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসেছে বাংলাদেশ। ইন্দোনেশিয়ার বদলে দক্ষিণ কোরিয়া থেকে উন্নতমানের ২০টি ইঞ্জিন ও ১৫০টি কোচ কেনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

হঠাৎ ইন্দোনেশিয়ার বদলে দক্ষিণ কোরিয়াকে বেছে নেওয়ার কারণ হিসেবে জানা যাচ্ছে, বড় অঙ্কের ঋণ সহায়তা দিচ্ছে বলেই কোরিয়াকে বেছে নেওয়া হয়েছে। যদিও ইন্দোনেশিয়া থেকে খরচ বেশি পড়বে।

রেল মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা যায়, ইন্দোনেশিয়া থেকে কিনলে প্রতিটি কোচের দাম পড়তো সাড়ে ৪ কোটি টাকা। আর দক্ষিণ কোরিয়া থেকে কেনার সিদ্ধান্ত নেওয়াতে প্রতিটি কোচের দাম পড়বে আনুমানিক ৫ কোটি টাকা। আর কোরিয়া থেকে প্রতিটি ইঞ্জিনের দাম পড়বে ৫৬ কোটি ৫৫ লাখ টাকা।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ রেলওয়ের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (রোলিং স্টক) শামসুজ্জামান বলেন, ‘এবারই প্রথম কোরিয়া থেকে কোচ কেনা হবে। এর আগে দেশটি থেকে কয়েকটি ইঞ্জিন আনা হয়েছিল, যার মান অন্য দেশের তুলনায় অনেক ভালো। রেল কোচ ও ইঞ্জিন কেনা প্রকল্পে বড় ঋণও দিচ্ছে কোরিয়া।’

তিনি যোগ করেন, ‘দক্ষিণ কোরিয়া এ খাদে বড় অংকের ঋণ দিচ্ছে। তাই সে দেশ থেকেই ইঞ্জিন ও কোচ কেনা হচ্ছে।’

এ বিষয়ে রেল মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব কমল কৃষ্ণ ভাট্টচার্য বলেন, ‘নিরাপদ ও আরামদায়ক হওয়ায় রেলপথে যাত্রীর পাশাপাশি রেললাইনও বেড়েছে। ফলে বিদ্যামান কোচ ও ইঞ্জিন দিয়ে রেল পরিচালনায় হিমশিম খাচ্ছি। আমাদের অনেক রেল কোচ ও ইঞ্জিন পরিচালনাও অনেক ব্যায়বহুল। তবে আশা করছি, দক্ষিণ কোরিয়া থেকে ইঞ্জিন ও কোচ চলে এলে রেলপথে আরও গতি বাড়বে।’