sentbe-top

সিউলে ‘অন্যরকম’ উৎযাপনের মধ্য দিয়ে নববর্ষ পালন

বাংলা নববর্ষের সপ্তাহ আগেই নববর্ষ উৎযাপন শুরু হয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ার রাজধানী সিউলে। গতকাল দক্ষিণ কোরিয়ার প্রাণকেন্দ্র সিউল স্টেশন স্কাই গার্ডেন দেখে যে কারোরই মনে হতে পারে এইটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কোন একটি মঞ্চ। নানা রঙে রাঙ্গানো মঞ্চ নজর কেড়েছে সবার। উপভোগ্য বিভিন্ন আয়োজনের এই উৎযাপন দক্ষিণ কোরিয়ার বাংলাদেশী প্রবাসীরা ছাড়াও উপভোগ করেছে ভিনদেশীরাও।

বাংলাদেশ কালচারাল অ্যাসোসিয়েশন ইন কোরিয়া’র আয়োজনে এই উৎসব শুরু হয় মঙ্গল শোভাযাত্রার মাধ্যমে। দক্ষিণ কোরিয়ায় নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত আবিদা ইসলাম শোভাযাত্রার নেতৃত্ব দেন। স্কাই গার্ডেন প্রদক্ষিণ করে বর্ণাঢ্য এই শোভাযাত্রা শেষ হয়। ভোজনপর্বে পান্তা ইলিশের পাশাপাশি নানা ধরণের বাংলাদেশী খাবারের আয়োজন ছিল আগত দর্শকদের জন্য।

কোরিয়ার দুই জনপ্রিয় মুখ মনীষা এবং তামিমের উপস্থাপনায় শুরু হয় উৎসবের মূল আকর্ষণ সাংস্কৃতিক পরিবেশনা। নৃত্য পরিবেশন করেন তাবাসসুম কথা, হৃদি, চৈতীসহ অন্যান্য শিল্পীরা। বিদেশী শিল্পীদের নৃত্যে অংশগ্রহণ উৎসবকে অন্যরকম আমেজ এনে দেয়। অনুষ্ঠানে গান পরিবেশন করেন শিল্পী আশুতোষ অধিকারী, তামিম, সুমি বড়ুয়াসহ আরো অনেকে। গানের তালে তালে নৃত্য পরিবেশন করেন দক্ষিণ কোরিয়ার প্রিয়মূখ সাইদুল ইসলাম। কবিতা আবৃত্তি করেন কবি বুলবুল আহমেদ।

বাংলাদেশ কালচারাল অ্যাসোসিয়েশন ইন কোরিয়া’র সভাপতি মাহবুব আলম উৎসবকে সফল করার জন্য সকল প্রবাসীদের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন। সিউল সিটি কর্পোরেশনসহ যারা সহযোগিতা করেছেন তাদেরকে ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি ভবিষ্যতেও এই উৎসব চালিয়ে যাওয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।

sentbe-top