sentbe-top

আকস্মিক আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানালেন ডি ভিলিয়ার্স

de-villiersসম্প্রতি জনপ্রিয় সংবাদমাধ্যম ‘ইএসপিন’ কর্তৃক ঘোষিত সেরা ১০০ ক্রীড়াবিদের তালিকায় জায়গা করে নিয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটসম্যান এবি ডি ভিলিয়ার্স। সামনে ছিল বর্ণিল ক্রিকেট ক্যারিয়ারের হাতছানি, খেলার অপেক্ষায় ছিলেন ২০১৯ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপে। অথচ হুট করেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিলেন ৩৪ বছর বয়সী এই ক্রিকেটার।

রয়েল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরুর হয়ে আইপিএলের চলতি খুব একটা খারাপ খেলেননি ডি ভিলিয়ার্স। দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে সবশেষ সিরিজেও ভারতের বিপক্ষে দুর্দান্ত ব্যাটিং করেছিলেন তিনি। ‘মি. ৩৬০ ডিগ্রি’ খ্যাত এই ব্যাটসম্যানের ফর্ম নিয়ে চিন্তা ছিল না কখনোই। তবু নিজের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ক্যারিয়ারকে আর দীর্ঘায়িত করছেন না তিনি।

বুধবার ফেসবুকে নিজের অফিশিয়াল ভিডিও বার্তায় এই খবর জানান ডি ভিলিয়ার্স। সেখানে তিনি বলেন, ‘আমি জরুরি ভিত্তিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। ১১৪টি টেস্ট ম্যাচ, ২২৮টি ওয়ানডে এবং ৭৮টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলার পর এখন সময় এসেছে আমার জায়গায় অন্য কেউ দক্ষিণ আফ্রিকান দলে খেলুক। আমার দায়িত্ব আমি নিষ্ঠার সঙ্গে পালন করেছি। সত্যি বলতে আমি অনেক বেশি ক্লান্ত।’

২০০৪ সালে টেস্ট ক্রিকেট দিয়ে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে অভিষেক ঘটে ডি ভিলিয়ার্সের। এরপর থেকে গত ১৪ বছরে দক্ষিণ আফ্রিকার জার্সি গায়ে ১১৪টি টেস্ট ম্যাচ, ২২৮টি ওয়ানডে এবং ৭৮টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছেন তিনি। কয়েক দফায় প্রোটিয়া দলের অধিনায়কত্বও করেছেন তিনি।

sentbe-top