sentbe-top

মালয়েশিয়ায় জঙ্গি সম্পৃক্ততার অভিযোগে গ্রেফতার ৭

malaysia-policeজঙ্গি কর্মকাণ্ডে জড়িত সন্দেহে সাতজনকে গ্রেফতার করেছে মালয়েশিয়া পুলিশ। আটকদের মধ্যে দেশটির রাজা ও প্রধানমন্ত্রীকে জীবননাশের হুমকিদাতাও রয়েছেন। বৃহস্পতিবার (১৯ জুলাই) মালয়েশিয়া পুলিশ এক বিবৃতিতে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমকে এ তথ্য জানিয়েছে।

মালয়েশিয়া পুলিশের ইন্সপেক্টর জেনারেল মোহাম্মাদ ফুজি হারুন এক বিবৃতিতে জানান, জুলাইয়ের ১২ থেকে ১৭ তারিখ পর্যন্ত দেশটির চারটি প্রদেশে চারজন মালয়েশিয়ান ও তিনজন ইন্দোনেশিয়ানকে গ্রেফতার করা হয়।

২০১৬ সালে প্রতিবেশী দেশ ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী জাকার্তায় ইসলামিক স্টেটের বন্দুকধারীর সিরিজ হামলা চালানোর পর থেকে সর্বোচ্চ সতর্ক অবস্থানে রয়েছে মালয়েশিয়া।

বিবৃতিতে ফুজি জানান, ৩৪ বছর বয়সী এক বেকার যুবককে দেশটির প্রদেশ জোহর থেকে গ্রেফতার করা হয়। এ ব্যক্তির বিরুদ্ধে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মালয়েশিয়ার রাজা পঞ্চম সুলতান মুহাম্মদ, প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ ও ধর্ম মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী মুজাহিদ ইউসুফ রাওয়াকে জীবননাশের হুমকি দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে। মুহাম্মদ ফুজি আরও বলেন, শরিয়াহ আইন মোতাবেক দেশ পরিচালনা না করার জন্য জীবননাশের হুমকি দেওয়া হতে পারে।

ঈদুল ফিতরের পর মালয়েশিয়া, ইন্দোনেশিয়া ও ফিলিপাইনে বোমা হামলার পরিকল্পনার জন্য ৪২ বছর বয়সী এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করে মালয়েশিয়া পুলিশ। অন্য দুইজন সন্দেহভাজন মালয়েশিয়ানের মধ্যে একজন পুরুষ ও নারী রয়েছেন। গ্রেফতার হওয়া মালয়েশিয়ান নারীর বিরুদ্ধে জঙ্গি সংগঠনে অর্থায়নের অভিযোগ রয়েছে। আর পুরুষটির বিরুদ্ধে আইএসে যোগ দেওয়ার পরিকল্পনার প্রমাণ পেয়েছে মালয়েশিয়ান পুলিশ।

গ্রেফতার হওয়া ইন্দোনেশিয়ানদের মধ্যে একজনের বিরুদ্ধে আইএসের প্রশিক্ষণ গ্রহণের অভিযোগ রয়েছে। অপর এক ইন্দোনেশিয়ানের বিরুদ্ধে স্থানীয় একটি ‘সন্ত্রাসী’ সংগঠনে যুক্ত থাকার অভিযোগ রয়েছে। তৃতীয় ইন্দোনেশিয়ান ব্যক্তির বিরুদ্ধে আইএসের সদস্য হওয়ার সত্যতা পেয়েছে মালয়েশিয়ান পুলিশ।

গত কয়েক বছরে মালয়েশিয়া কর্তৃপক্ষ জঙ্গি সম্পৃক্ততার অভিযোগে কয়েকশ ব্যক্তিকে গ্রেফতার করে। তবে এখন পর্যন্ত দেশটিতে বড় কোনো জঙ্গি হামলা হয়নি।

sentbe-top