sentbe-top

ভোট চাওয়ায় প্রার্থীকে জুতার মালা পরালেন ভোটার

india-newsনির্বাচনী প্রচারণা জমে উঠেছে। এর মধ্যে প্রচারণা চালাতে গিয়ে বিড়ম্বনার মুখে পড়লেন এক প্রার্থী। ফুলের মালার বদলে তার গলায় উঠল জুতার মালা। এ ঘটনা ঘটেছে ভারতের মধ্যপ্রদেশে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জি নিউজ বলছে, মধ্যপ্রদেশে নির্বাচনী প্রচারণায় গিয়ে অস্বস্তিকর পরিস্থিতির মুখোমুখি হয়েছেন দেশটির ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক দল ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) বিধায়ক দিলীপ শেখাওয়াত।

নির্বাচনে এবারও প্রার্থী হয়েছেন তিনি। প্রচারণায় বেরিয়ে জুতার মালা উঠল দিলীপের গলায়। সোমবার বিকেলের এ ঘটনায় হতচকিত হয়ে পড়েন বিজেপি কর্মীরা।

জি নিউজ বলছে, নাগাদা কাচরোদের বিধায়ক দিলীপ শেখাওয়াত। ওই কেন্দ্রে ফের প্রার্থী হয়েছেন তিনি। সোমবার বিকেলে বেরিয়ে ছিলেন নির্বাচনী প্রচারণায়। গলায় মালা পরিয়ে বিধায়ককে স্বাগত জানান দলের কর্মীরা।

ঠিক তখনই বিজেপির টুপি পরে ঘাপটি মেরেছিলেন এক ব্যক্তি। হাতে লুকিয়ে রেখেছিলেন জুতার মালা। বিজেপি বিধায়ক দিলীপ কাছাকাছি আসতেই সেই মালা পরিয়ে দেন তার গলায়। আর এ ঘটনার একটি ভিডিও ভাইরাল হয়ে ছড়িয়ে পড়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।

ভিডিওতে দেখা যায়, বিজেপির টুপি পরা ওই ব্যক্তি জুতার মালা পরানোর পর দৃশ্যত বিড়ম্বনার মুখে পড়েন দিলীপ শেখাওয়াত। জুতার মালাটি ছুড়ে তেড়ে যান ওই বিজেপি কর্মীর দিকে।

রাজনৈতিক নেতাদের দিকে জুতা কিংবা কালি নিক্ষেপ ভারতে নতুন কোনো ঘটনা নয়। এ ধরনের ঘটনা অতীতেও অনেকবার দেখা গেছে। রাজনীতিকদের প্রতি জন্ম নেয়া দীর্ঘদিনের ক্ষোভ থেকে এভাবে অনেকেই প্রতিবাদ জানান।

আগামী ২৮ নভেম্বর মধ্যপ্রদেশের বিধানসভার ভোটগ্রহণ। ২৩০টি আসনের এই রাজ্যে ১৫ বছর ধরে ক্ষমতায় রয়েছে বিজেপি। এবার বিজেপিকে ক্ষমতাচ্যুত করার হুমকি দিয়েছে বিরোধী দল কংগ্রেস। মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিংয়ের বিরুদ্ধে বিভিন্ন ধরনের অনিয়ম ও কেলেঙ্কারিকে হাতিয়ার করে নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করেছে কংগ্রেস।

sentbe-top