sentbe-top

জাপানি ব্যবসায়ীদের বাংলাদেশে বিনিয়োগের আহ্বান

touhid-japanজাপানে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা বাংলাদেশে জাপানি ব্যবসায়ীদের বিনিয়োগের আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, বাংলাদেশে বিনিয়োগের অনেক সুযোগ-সুবিধা রয়েছে। জাপানি ব্যবসায়ীরা এই সুযোগ নিতে পারেন। বাংলাদেশ সরকারের নীতি ব্যবসাবান্ধব। বৃহস্পতিবার (১৩ ডিসেম্বর) দূতাবাসে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে তিনি একথা বলেন।

টোকিওর বাংলাদেশ দূতাবাসের বঙ্গবন্ধু মিলনায়তনে জাপান–বাংলাদেশ পারস্পরিক সম্পর্ক উন্নয়ন ও ব্যবসা-বাণিজ্য বৃদ্ধি সংক্রান্ত একটি সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ দূতাবাস ও জাপান-বাংলাদেশ সোসাইটি যৌথভাবে সেমিনারটির আয়োজন করে। বিপুলসংখ্যক জাপানি ব্যবসায়ী ও তাদের প্রতিনিধিরা সেমিনারে অংশ নেন।

সেমিনারে স্বাগত বক্তব্য দেন জাপান-বাংলাদেশ সোসাইটির প্রেসিডেন্ট ও বাংলাদেশে অবস্থিত জাপান দূতাবাসের সাবেক রাষ্ট্রদূত মাতসুশিরো হরিগুচি। জাপানে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা সেমিনারে মূল উপস্থাপনা করেন। এতে আরো বক্তব্য রাখেন জাপান-বাংলাদেশ সোসাইটির পরিচালক ও মারুহিসা কো. লি. এর প্রেসিডেন্ট হিরাইশি কিমিনবু।

রাষ্ট্রদূত ফাতিমা বিগত এক দশকে বাংলাদেশে অর্জিত উন্নয়নের ধারা আগত অতিথিদের কাছে তুলে ধরেন। তিনি এসময় বাংলাদেশের প্রবৃদ্ধি, মাথাপিছু আয়, রপ্তানি, শিক্ষারহার, বিদ্যুৎ উৎপাদন ইত্যাদি তথ্য উপস্থাপন করেন।

রাষ্ট্রদূত আরো বলেন, বাংলাদেশ বিশ্বের ৪৩তম বৃহৎ অর্থনীতি এবং গড় প্রবৃদ্ধি শতকরা সাত ভাগের বেশি। বাংলাদেশ তৈরিপোশাক রপ্তানিতে বিশ্বে দ্বিতীয়, চাল উৎপাদনে চতুর্থ এবং মাছ ও সবজি উৎপাদনে তৃতীয়। তিনি বাংলাদেশের খাতভিত্তিক উন্নয়নচিত্র সবাইকে অবহিত করেন এবং দেশের বিভিন্ন মেগা প্রকল্পের বর্ণনা দেন।

সেমিনারে বাংলাদেশের অর্থনীতি, দেশে বিদ্যমান ব্যবসার অনুকূল পরিবেশ ও সরকার প্রদত্ত সুবিধানিয়ে আলোচনা করেন জাপান এক্সটারনাল ট্রেড অরগানাইজেশন (জেট্রো) ঢাকার প্রতিনিধি তাইকি কোগা।

এছাড়া বাংলাদেশে ব্যবসা পরিচালনার অভিজ্ঞতা বর্ণনা করেন শিপ হেলথ কেয়ারের নির্বাহী পরিচালক হিরোইউকি কোবাইয়াসি ও শিমিজু করপোরেশনের ঢাকা প্রতিনিধি ইয়াসুশি মিজুশিনা।

সৌজন্যে- বাংলানিউজ

sentbe-top