cosmetics-ad

দ. কোরিয়ার ফেরি দুর্ঘটনাস্থলে ডুবুরির মৃত্যু

সিউল, ৬ মে ২০১৪:

দক্ষিণ কেরিয়ায় গত ১৬ এপ্রিল সংঘটিত ফেরি দুর্ঘটনাস্থলে কাজ করার সময় মঙ্গলবার একজন ডুবুরির মৃত্যু হয়েছে। কোস্টগার্ডের মুখপাত্র কো মিউং-সুক সাংবাদিকদের জানান, ৫৩ বছর বয়সী লী দুর্ঘটনাস্থলে প্রথমবারের মতো ডুব দিয়ে ২৫ মিটার গভীরে পৌঁছলে শ্বাস-প্রশ্বাসের সমস্যায় ভোগেন এবং জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। পরে তাকে একটি হাসপাতালে মৃত ঘোষণা করা হয়।

PYH2014050602940031500_P2

এখনো ঘটনার পূর্ণ বিবরণ পাওয়া যায়নি। তবে বার্তা সংস্থা ইয়নহাপ জানায়, লী বেসরকারি প্রতিষ্ঠান আনডাইন মেরিন ইন্ডাস্ট্রিজের একজন অভিজ্ঞ সদস্য ছিলেন। দুর্ঘটনায় ডুবে যাওয়া নৌযান থেকে প্রবল স্রোত ও লবণাক্ত পানির বৈরি অবস্থা মোকাবেলা করে লাশ খুঁজে বের করা ও উদ্ধারের কঠিন কাজে নিয়োজিত ডুবুরিদের মধ্যে এ পর্যন্ত একমাত্র লী-ই মারা গেছেন।

উদ্ধার অভিযান শুরু হওয়ার পর থেকে অপর ১০ ডুবুরিকে ক্লান্তি ও চাপজনিত অসুস্থতার জন্য চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। গত ১৬ এপ্রিল ৪৭৬ জন যাত্রী নিয়ে নৌযানটি ডুবে যায়। যাত্রীদের অধিকাংশই ছিল স্কুল শিক্ষার্থী। প্রেসিডেন্ট পার্ক মঙ্গলবার এ বিপর্যয় রোধে তার সরকারের ব্যর্থতার জন্য নতুন করে ক্ষমা প্রার্থনা করেন। তিনি নিহতের সংখ্যা ২৬৩ এবং এখনো ৩৯ জন নিখোঁজ রয়েছে বলে নিশ্চিত করেন।