cosmetics-ad

স্পেনে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে বাংলাদেশির মৃত্যু

arju

স্পেনের উত্তর টেনেরিফে কাজী আরজু (৫৮) নামে এক বাংলাদেশি ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। গত ৩ ফেব্রুয়ারি স্থানীয় সময় রাত সাড়ে দশটার দিকে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে তার মৃত্যু হয়।

স্পেন প্রবাসী ফরিদ হাসান জানান, দেশটির গ্রান কানারিয়ার উত্তর টেনেরিফে সপরিবারে বাস করতেন কাজী আরজু। সেখানে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে তার মৃত্যু হয়। তার দেশের বাড়ি শরিয়তপুরে। তিনি দুই ছেলে ও দুই মেয়ে রেখে গেছেন।

তিনি আরও জানান, মৃত্যুর পর কয়েক দিন সানতা ক্রুজ নামক একটি হাসপাতালে তার মরদেহ রাখা হয়। পরে স্পেন প্রবাসী ব্যবসায়ী ও মসজিদে আল সুন্নাহ মসজিদ কমিটির সভাপতি জাকির হোসেনের সার্বিক সহযোগিতা এবং বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের সহযোগিতায় গত শুক্রবার উত্তর টেনেরিফ থেকে মাদ্রিদ হয়ে মরদেহটি দেশে পৌঁছায়। কাজী আরজুর মরদেহ দেশে পাঠাতে বিশেষ আর্থিক সহযোগিতা করেছে মাদ্রিদ দূতাবাস।

এ ব্যাপারে ব্যবসায়ী জাকির হোসেন জানান, আমরা হাসপাতাল থেকে আরজুর মরদেহ নিয়ে গোসল করিয়ে জানাজার নামাজ সম্পন্ন করি। এ সময় তার দুই ছেলে, মামা, ছাইদ আহামেদ, আমির হোসেন, রিংকু মিয়া, আব্দুল মতিন, হাসান বাগিনা, নেয়ামত উল্লাহ, ফারুক মিয়া আবদুল গনি, সেলিম মিয়াসহ বেশ কয়েকজন বাংলাদেশি উপস্থিত ছিলেন। তার মৃত্যুতে প্রবাসী বাংলাদেশিরা শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন।

দীর্ঘদিন ইতালি বসবাসের পর কাজের সুবাদে সপরিবারে স্পেনের টেনেরিফে পাড়ি জমান কাজী আরজু। সেখানে তিনি একটি কনফেকশনারিতে হেড কারিগর হিসেবে কাজ করেছিলেন।