cosmetics-ad

বিক্ষোভ এড়াতে সু চির ইন্দোনেশিয়া সফর বাতিল

indonesia_-malaysia_-_myanmar_-_rohingya

রোহিঙ্গা ইস্যুতে বিক্ষোভের মুখোমুখি হওয়ার আশঙ্কায় ইন্দোনেশিয়ায় পূর্বপরিকল্পিত সফর বাতিল করেছেন মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সেলর ও এনএলডি নেত্রী অং সান সু চি। সোমবার মিয়ানমারের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে এ কথা জানানো হয়েছে। খবর ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ক্য জায়া বলেছেন, শুক্রবার ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী জাকার্তায় বিক্ষোভ হওয়ার কথা রয়েছে, যেখানে রোহিঙ্গা ইস্যুও থাকবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। ওইদিনই অং সান সু চির ইন্দোনেশিয়া যাওয়ার কথা ছিল। জায়া জানান, সু চির সফর বাতিলের পেছনে বিক্ষোভের বিষয়টি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে।

এদিকে গত কয়েক দিনে ইন্দোনেশীয় পুলিশ ইসলামিক স্টেট (আইএস) সমর্থক সন্দেহে বেশ কয়েকজনকে গ্রেফতার করেছে। পুলিশ বলেছে, তারা মিয়ানমার দূতাবাসসহ জাকার্তার বেশ কয়েকটি অবস্থানে বোমা হামলা চালানোর পরিকল্পনা করছিল বলে সন্দেহ করা হচ্ছে।

সাম্প্রতিক সময়ে রোহিঙ্গা ইস্যুতে মিয়ানমারে পরিস্থিতি জটিল আকার ধারণ করেছে। অক্টোবরের শুরুতে মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যের একটি সীমান্ত পোস্টে হামলার ঘটনায় নয়জন পুলিশ নিহত ও অস্ত্র লুট হয়। এর পর থেকেই দেশটির সরকার রোহিঙ্গা সম্প্রদায়ের বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থান নিয়েছে।

রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গারা মানবেতর জীবনযাপন করলেও সেখানে ত্রাণ সংস্থা বা সাংবাদিকদের প্রবেশ করতে দিচ্ছে না মিয়ানমার সরকার। এ কারণে সেখানকার প্রকৃত পরিস্থিতি সম্পর্কেও নিশ্চিত করে কিছু জানা যাচ্ছে না। তবে চলতি মাসে হিউম্যান রাইটস ওয়াচ কর্তৃক প্রকাশিত ভূ-উপগ্রহ থেকে তোলা ছবি ও রোহিঙ্গাদের পাঠানো কিছু ভিডিওচিত্রে দেখা গেছে, মংদু শহরের কাছে বেশ কয়েকটি গ্রাম জ্বালিয়ে দেয়া হয়েছে। ফলে এসব এলাকা থেকে পলায়নরত শরণার্থীর সংখ্যা প্রতিনিয়ত বাড়ছে।

তবে প্রেসিডেন্টের একজন মুখপাত্র চলতি মাসে অভিযোগ করেছেন, আন্তর্জাতিক মহলে মিয়ানমারের সুনাম ক্ষুণ্ন করার জন্য রোহিঙ্গারাই নিজেদের গ্রাম জ্বালিয়ে দিচ্ছে।