cosmetics-ad

ফুটবল বিশ্বকাপের বর্ণাঢ্য সমাপনী অনুষ্ঠান

world-cup-closing

এক মাস আগে এই লুঝনিকি স্টেডিয়ামে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের সুর বাজিয়েছিল ব্রিটেনের বিখ্যাত পপ সঙ্গীত শিল্পী রবি উইলিয়ামস তার ‘লেট মি এন্টারটেন ইউ’ গানের মাধ্যমে। ঠিক একমাস পর সেই বিশ্বকাপের বিদায়ের রাগিনী বাজিয়ে দিলো দক্ষিণ কোরিয়ার বিখ্যাত ব্যান্ড দল ইএক্সও। তার আগে হয়ে গেলো বর্ণিল সমাপনি অনুষ্ঠান। মাত্র ১৫-২০ মিনিটের এই অনুষ্ঠান মাতিয়ে দিয়ে গেলো বিশ্বকাপ দেখতে বসা সারা বিশ্বের দর্শকদের।

শুরুতেই চমক। লুঝনিকি স্টেডিয়ামে পারফরমারদের মাধ্যমে মাঠের মধ্যেই ছোট ছোট অনেকগুলো ইলেক্ট্রনিক বোর্ড দিয়ে তৈরি করা হয় দারুণ এক জায়ান্ট স্ক্রিনের। যার মধ্যে তুলে ধরা হলো বিশ্বকাপের নানা স্লাইড শো। রাশিয়ার সংস্কৃতি।

world-cup-closing1আলবেনিয়ান বংশোদ্ভূত এরা এস্ত্রাফি গাইলেন এবারের বিশ্বকাপের থিম সং ‘লিভ ইট আপ’। গ্যালারি মাতাতে মাইক্রোফোন হাতে মঞ্চে উঠে আসেন নিকি জ্যাম, সর্বশেষ স্টেজে ওঠেন হলিউডের শক্তিমান অভিনেতা উইল স্মিথ।

শুরুতেই গান নিয়ে বিশ্বকাপের সমাপতি মাতিয়ে তোলেন দক্ষিণ কোরিয়ার বিখ্যাত কে-পপ ব্যান্ড ‘ইএক্সও’। অনলাইন ভোটে ‘বিটিএস-ফেক লাভ’সহ আরও দুটি জনপ্রিয় ব্যান্ড দলকে হারিয়েই ফাইনালে পারফর্ম করার সুযোগ পান তারা।

world-cup-closing2উইল স্মিথ আর নিকি জ্যামের পরিবেশনা চলতে চলতেই ইলেক্ট্রনিক বোর্ডের মাধ্যমে ক্রোয়েশিয়া এবং ফ্রান্সের খেলোয়াড়দের প্রতিকৃতি। শেষ মুহূর্তে দক্ষিণ কোরিয়ান ব্যান্ড ইএক্সও’র সঙ্গে ঢোলের বাধ্যে সাম্বা ছন্দের অবতারণা করেন বিশ্বজয়ী ব্রাজিলিয়ান ফুটবলার রোনালদিনহো। জনপ্রিয় অপেরা সঙ্গীত পরিবেশন করেন দক্ষিণ কোরিয়ান ব্যান্ডটি।

সমাপনি অনুষ্ঠানের পরই বিশ্বকাপের ট্রফি উন্মোচন বরেন ২০১৪ বিশ্বকাপজয়ী দল জার্মানির অধিনায়ক ফিলিপ লাম এবং রাশিয়া বিশ্বকাপের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর ভিক্টোরিয়া লোপেরোভা। ট্রফি উন্মোচন করে সেটিকে মঞ্চে নিয়ে আসেন ফিলিপ লাম।

সৌজন্যে- জাগো নিউজ