cosmetics-ad

কোপা আমেরিকার নতুন চ্যাম্পিয়ন চিলি

CJG1ff4WwAAblp0

ঘুচলো না আর্জেন্টিনার দুই দশকের ট্রফিখরা। আরও একবার স্বপ্নভঙ্গের বেদনায় নীল হল আকাশী সাদা শিবির। বছর না ঘুরতেই আরও একটি শিরোপার খুব কাছ থেকে শূন্য হাতে ফিরতে হল আলবিসেলস্তেদের। ৪৪তম কোপা আমেরিকার ফাইনালে লিওনেল মেসিদের টাইব্রেকারে ৪-১ ব্যবধানে হারিয়ে আমেরিকান ফুটবলের শ্রেষ্ঠত্বের মুকুট প্রথমবারের মতো মাথায় তুললো স্বাগতিক চিলি।

CJG1ew8WwAAVpoK

ম্যাচের শুরু থেকেই আর্জেন্টিনার রক্ষণদুর্গে মুহুর্মুহু আক্রমণ চালান সানচেজরা। ম্যাচের ১৩ মিনিটে সানচেজ-ভিদালদের প্রথম আক্রমণ রুখে দেন আর্জেন্টাইন গোলরক্ষক রোমেরো। ২২ মিনিটের সময় পাল্টা আক্রমণে প্রায় মাঝমাঠ থেকে একাই বল টেনে নিয়ে যান ভারগাস। কিন্তু এ যাত্রায়ও জালের দেখা পায় নি বল।

২০ মিনিটের মাথায় গোলবারের ডান দিক থেকে মেসির নেওয়া ফ্রি-কিকে চিলির বক্সে দাঁড়িয়ে হেড করেন আগুয়েরো। গোলের দারুণ সুযোগ থাকলেও স্বাগতিক গোলরক্ষক ব্রাভো ঝাঁপিয়ে পড়ে নিজের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে নেন বল।

২৪ মিনিটে ডি মারিয়াকে ফাউল করেন চিলির সিলভা। যার কারণে কিছুটা আঘাতপ্রাপ্ত হয়ে মাঠ ত্যাগ করেন সেমিফাইনালে জোড়া গোল করা ডি মারিয়া। ২৯ মিনিটে ডি মারিয়ার বদলি হিসেবে মাঠে প্রবেশ করেন ইজিকুয়েল লাভেজ্জি।

৪৫ মিনিটে সানচেজের দুর্বল শট রুখে দেন রোমেরো। পরের মিনিটে সুযোগ পেয়েছিলেন লাভেজ্জি। তার জোরালো শটটি চিলিয়ান গোলরক্ষক ব্রাভোর হাতে লেগে ফিরে যায়। আক্রমণ আর পাল্টা আক্রমণে খেলা গড়ালেও প্রথমার্ধে কোনো দলই গোলের দেখা পায়নি।

বিরতির পর ফের আক্রমণে যায় স্বাগতিকরা। অতামেন্ডিকে ফাঁকি দিয়ে সানচেজ গোলবারের বামদিক দিয়ে বল তুলে মারেন ডি-বক্সে থাকা ভিদালকে লক্ষ্য করে। হেড করলেও ভিদালকে গোলবঞ্চিত করেন রোমেরো। সরাসরি আর্জেন্টাইন গোলরক্ষকের গ্লাভসে বল জমা হয়।

৫১ মিনিটে আবারো আর্জেন্টাইনদের ডিফেন্সকে বুড়ো আঙ্গুল দেখিয়ে আক্রমণে যায় চিলি। বামপ্রান্তে ভিদাল দারুণ এক পাসে বল বাড়িয়ে দেন ভালদিভিয়াকে। তার নেওয়া শটটি কর্নারের মাধ্যমে রক্ষা করেন মার্টিনোর শিষ্যরা। ৫৫ মিনিটে মার্কোস রোহো আর মাশচেরানো হলুদ কার্ড দেখেন।

অতিরিক্ত সতর্কতা নিয়ে খেলতে থাকা মেসি-আগুয়েরোরা নিজেদের গুছিয়ে নিয়ে দ্বিতীয়ার্ধে সুযোগেন সন্ধান করতে থাকেন। ৬০ মিনিটের পর থেকে চাপ সামলে নিয়ে চিলির ডিফেন্সে বারবার চিড় ধরানোর চেষ্টা করেন আর্জেন্টাইন তারকারা।৬৫ মিনিটে মেসির নেওয়া ফ্রি-কিক প্রতিহত হয় চিলির ডিফেন্ডারদের তৈরি করা দেওয়ালে। আর পরের মিনিটে সানচেজের বাড়ানো বলে ভিদালের জোরালো শট প্রতিহত করেন আর্জেন্টাইন ডিফেন্ডার জাবালেতা।

৭৭ মিনিটে মার্টিনো আগুয়েরোকে তুলে নিয়ে মাঠে নামান গঞ্জালো হিগুয়েনকে। আর সাম্পাওলি ভালদিভিয়াকে তুলে নিয়ে মাঠে পাঠান মাতি ফার্নানদেজকে। ৮১ মিনিটে পিএসজির আর্জেন্টাইন তারকা পাস্তোরের বদলি হিসেবে মাঠে আসেন এভার বেনেগা।

৮৩ মিনিটে বামপ্রান্ত দিয়ে পাওয়া বলে জোরালো শট নেন সানচেজ। ডানদিকে ঝাঁপিয়ে পড়ে বলের গতি থামিয়ে দিতে চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন রোমেরো। বল তার হাতের নাগালের অল্প বাইরে দিয়ে চলে যায়। তবে, ভাগ্য সুপ্রসন্ন হওয়ায় আর্জেন্টিনার বার ঘেঁষে বল বাইরে চলে যায়।

৮৭ মিনিটে গোলের সুযোগ তৈরি করেছিল মেসি-হিগুয়েনরা। আর্জেন্টাইন দলপতির বাড়ানো বলে হিগুয়েন-লাভেজ্জিরা শট নেওয়ার আগেই অফসাইডে বাধা পড়েন।

নির্ধারিত নব্বই মিনিটের খেলা গোলশূন্য থাকার পর অতিরিক্ত সময়েও গোলের দেখা না মিললে খেলা গড়ায় টাইব্রেকারে। চিলির হয়ে প্রথম শট থেকে গোল করেন ফার্নানদেজ। আর মেসির শটে গোল হলে সমতায় থাকে আর্জেন্টিনা। পরের শটে ভিদাল গোল করলে ২-১ এ এগিয়ে যায় চিলি। নিজেদের দ্বিতীয় শটে গঞ্জালো হিগুয়েন গোলবারের অনেক উপর দিয়ে বল মেরে দিয়ে দলকে বিপদে ফেলেন।

CJGuaqQWUAEx9Ae
চিলির হয়ে তৃতীয় শটটিতে গোল করেন আরানগুয়েজ। আর নিজেদের তৃতীয় শটে গোল করতে ব্যর্থ হন এভার বেনেগা। তার শটটি ঝাঁপিয়ে পড়ে রুখে দেন বার্সার গোলরক্ষক চিলিয়ান ব্রাভো। চতুর্থ শটে গোল করে শিরোপা নিশ্চিত করেন চিলির সেরা অস্ত্র অ্যালেক্সিজ সানচেজ।

CJGyzyGUYAAEdtj

কোপা আমেরিকার ৯৯ বছরের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো শিরোপা জিতলো চিলি। উল্লেখ্য, লাতিন আমেরিকার দেশটির এটিই প্রথম কোন বড় শিরোপাও বটে।