sentbe-top

সব ধরনের ক্রিকেট থেকে জনসনের অবসর

jonsonআন্তর্জাতিক ক্রিকেট ছেড়েছেন প্রায় তিন বছর আগে, ২০১৫ সালের নভেম্বরে। এরপর বিভিন্ন দেশের টি-টোয়েন্টি লিগগুলোতে খেলে যাচ্ছিলেন অস্ট্রেলিয়ার বাঁহাতি পেসার মিচেল জনসন। আইপিএলের সর্বশেষ মৌসুমেও কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে খেলেছেন তিনি। এবার সব ধরনের ক্রিকেট থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিলেন এই গতিতারকা।

জনসন অবশ্য আরও কিছুদিন খেলে যেতে চেয়েছিলেন। কিন্তু তার শরীরটা সায় দেয়নি। সব ধরনের ক্রিকেট থেকে বিদায়ের ঘোষণাটা তিনি দিয়েছেন ‘পার্থ নাউ’ এর এক কলামে। যেখানে অজি পেসার লিখেছেন, ‘শেষ হয়ে গেল। আমি আমার শেষ বলটা করে ফেলেছি। নিয়ে নিয়েছি শেষ উইকেটটিও। আজ আমি সব ধরণের ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দিচ্ছি। আশা করেছিলাম, আগামী বছরের মাঝামাঝি পর্যন্ত বিশ্বজুড়ে টি-টোয়েন্টি লিগগুলো খেলতে পারব। তবে শরীরটা বেঁকে বসেছে।’

sentbe-adজনসন জানিয়েছেন, আইপিএলের গত মৌসুম থেকেই পিঠের সমস্যায় ভুগছেন তিনি। এ বছর নাইটরা অজি এই পেসারকে ২ কোটি রুপিতে কিনলেও মাঠে তিনি তার মূল্য বোঝাতে পেরেছেন সামান্যই। ছয় ম্যাচে ২১৬ রান খরচায় তিনি নিতে পেরেছিলেন মাত্র ২টি উইকেট।

গত মাসে বিগব্যাশ লিগ খেলে পার্থ সকারকে বিদায় বলেন জনসন। চলতি বছরে পাকিস্তান সুপার লিগে করাচি কিংসের হয়ে খেলার কথা থাকলেও পরে নাম প্রত্যাহার করে নেন তিনি। আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নেয়ার পর টি-টোয়েন্টিতে ৩৩টি ম্যাচ খেলে ৭.২৮ গড়ে ৩১ উইকেট নিয়েছেন জনসন। পারফরম্যান্স খুব একটা খারাপ না। তবে শরীরটাও তো সায় দিতে হবে!

sentbe-top