sentbe-top

উজবেকিস্তানের কাছে হ্যাটট্রিক হার বাংলাদেশের

bd-footballএশিয়ান গেমস ফুটবলে উজবেকিস্তানের কাছে হারের হ্যাটট্রিক করলো বাংলাদেশ। ২০১০ সালে গুয়াংজু, ২০১৪ সালে ইনচিয়নের পর এবার হারলো জাকার্তা এশিয়ান গেমসে। মঙ্গলবার ইন্দোনেশিয়ার জাকার্তার পাকান সারি স্টেডিয়ামে নিজেদের প্রথম ম্যাচে বাংলাদেশ ৩-০ গোলে হেরেছে মধ্য এশিয়ার দেশটির কাছে। আগের দুই এশিয়ান গেমসেও উজবেকদের কাছে হারের ব্যবধান ছিল ৩-০।

বাংলাদেশ এ ম্যাচে আরো বড় ব্যবধানে হারতে পারতো; কিন্তু গোলপোস্টের নিচে আশরাফুল ইসলাম রানার দুর্দান্ত পারফরম্যান্স বাংলাশেকে বাঁচায় আরো বড় হারের লজ্জা থেকে। গোলরক্ষক গোটা সাতেক দুর্দান্ত সেভ করেছেন এই ম্যাচে।

এ ম্যাচ দিয়ে বাংলাদেশের ডাগআউটে অভিষেক হলো ইংলিশ কোচ জেমি ডে’র। হার দিয়েই তিনি শুরু করলেন বাংলাদেশ পর্ব। এশিয়ান গেমসের আগে বাংলাদেশ প্রথমে কাতার ও পরে দক্ষিণ কোরিয়ায় কন্ডিশনিং ক্যাম্প করার পাশপাশি প্রস্তুতি ম্যাচও খেলেছে। তারপরও এশিয়ান গেমসে উজবেকিস্তানের কাছে হারের ব্যবধান কমলো না লাল-সবুজ জার্সিধারীদের।

sentbe-adশুরু থেকেই বাংলাদেশকে চেপে ধরে উজবেকিস্তান। প্রথম ২০ মিনিটে উজবেকদের বল পজেশন ছিল ৯২ ভাগ, বাংলাদেশের ৮। যদিও এশিয়ান গেমসের সাবেক চ্যাম্পিয়নদের গোলের জন্য অপেক্ষা করতে হয়েছে ২৩ মিনিট পর্যন্ত। মোটা দাগে বলতে গেলে, উজবেকিস্তানকে গোল থেকে বঞ্চিত করেছেন বাংলাদেশের গোলরক্ষক আশরাফুল ইসলাম রানা। ১৯৯৪ সালে হিরোশিমা এশিয়ান গেমসের স্বর্ণজয়ী উজবেকিস্তান বৃষ্টির মতো বাংলাদেশের পোস্টে আক্রমণ চালায়। একের পর এক তাদের আক্রমণগুলো রুখে দিতে থাকেন বাংলাদেশের গোলরক্ষক।

২৩ মিনিটে উজবেকিস্তান এগিয়ে যায় ইউরিনবোয়েভ জাবিখিলোর গোলে। ডান দিক দিয়ে আলিবায়েভেবের ক্রসে হেডে গোল করেন ইউরি। এই ১ গোলেই প্রথমার্ধ শেষ হয়। ৫৭ মিনিটে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন খামদামভ দস্তনবেক। ৬৬ মিনিটে উজেবিকস্তানের তৃতীয় গোল করেন আলিবায়েভেব ইকরমজন। বাংলাদেশ দ্বিতীয় ম্যাচ খেলবে বৃহস্পতিবার থাইল্যান্ডের বিরুদ্ধে।

বাংলাদেশ দল: আশরাফুল ইসলাম রানা, রহমত মিয়া (সুশান্ত ত্রিপুরা), বিশ্বনাথ ঘোষ, জামাল ভুঁইয়া, টুটুল হোসেন বাদশা, তপু বর্মন, মাহবুবুর রহমান সুফিল (জাফর ইকবাল), আতিকুর রহমান ফাহাদ (আবদুল্লাহ), সা’দ উদ্দিন, মাসুক মিয়া জনি ও বিপুল আহমেদ।

sentbe-top