cosmetics-ad

একজন মানবিক পুলিশ কর্মকর্তা

najmul

হবিগঞ্জ জেলার চুনারুঘাট উপজেলার ঘরগাঁও গ্রামের ধানের জমিতে দীর্ঘক্ষণ অজ্ঞান অবস্থায় ছিলেন নাম পরিচয়হীন এক মধ্যবয়সী নারী। মৃতপ্রায় মানুষটিকে দেখেও সবাই পাশ কাটিয়ে হেঁটে যাচ্ছিলেন।

বিষয়টি জানার পর সোমবার বিকেলে চুনারুঘাট থানার ওসি শেখ নাজমুল হক তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে ছুটে যান। মুমূর্ষু এ নারীকে উদ্ধার করে নিয়ে আসেন চুনারুঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে। হাসপাতালে ভর্তি করে তার সুচিকিৎসার ব্যবস্থা করেন। দীর্ঘক্ষণ এ নারীর পাশে দাঁড়িয়ে ও বসে সময় দেন। ব্যক্তিগত খরচে কম্বল, ভালো খাবার ও ঔষধ ক্রয় করে দেন। চিকিৎসাধীন অজ্ঞাত এ নারীর সার্বক্ষণিক খোঁজ খবর নেন।

ওসি শেখ নাজমুল হক বলেন, মানুষ হয়ে মানুষের পাশে থাকতে হবে। যাই হোক, ভাল একটি কাজ করতে পেরে অত্যন্ত ভাল লাগছে। আর এ ভাললাগা আরেকটি ভাল কাজে উৎসাহিত যোগাবে।

সুস্থ হওয়ার আগ পর্যন্ত অসুস্থ এই নারীর চিকিৎসার যাবতীয় খরচ তিনি বহন করবেন বলে জানিয়েছেন। এ সময় আহত ওই নারীর পরিচয় দিয়ে সহযোগীতা করার জন্য তিনি সকলের প্রতি অনুরোধ জানান।

পুলিশের এমন ভূমিকার প্রশংসা করে সমাজসেবক আব্দুল তৌহিদ বলেন, পুলিশের মন্দ দিকগুলোই আমরা দেখি। পুলিশ ভাল কাজও করে। তার প্রমাণ দিলেন ওসি শেখ নাজমুল হক।

ঘরগাঁওয়ের বাসিন্দা ডা. মুসলিম উদ্দিন বলেন, ওসির মানবিকতায় আমরা মুগ্ধ। তিনি ভাল কাজ করেছেন। এ জন্য অন্তর থেকে তার প্রতি ভালবাসা জানাই। সেই সাথে অজ্ঞাত এ নারীর সুস্থতা কামনা করছি।

সৌজন্যে- রাইজিংবিডি