cosmetics-ad

চীনকে হারিয়ে লক্ষ্য পূরণ বাংলাদেশের

bangladesh-china

এশিয়া কাপ হকিতে শক্তিশালী চীনকে হারিয়েছে বাংলাদেশ। সফরকারীদের টাইব্রেকারে শ্বাসরুদ্ধকর শুট আউটে ৪-৩ ব্যবধানে হারিয়ে লক্ষ্য পূরণ হয়েছে বাংলাদেশের। যে ৬ নম্বর হওয়ার লক্ষ্য নির্ধারণ ছিল টুর্নামেন্টের আগে, সেটা নিশ্চিত হলো। এখন জাপানের সঙ্গে লড়বে পঞ্চম স্থানের জন্য। পঞ্চম হতে না পারলেও এ জয়ে নিশ্চিত হলো পরের এশিয়া কাপে বাংলাদেশের সরাসরি খেলা। এবার আর বাছাই পর্ব খেলতে হবে না লাল-সবুজ জার্সিধারীদের।

মাওলানা ভাসানী জাতীয় হকি স্টেডিয়ামে গতকাল পঞ্চম ও ষষ্ঠ স্থান নির্ধারণী ম্যাচে ওঠার লড়াইয়ে নির্ধারিত সময়ের খেলা ৩-৩ গোলের সমতায় শেষ হয়। ফলে শুট আউটে গড়ায় ম্যাচের ভাগ্য।

শুট আউটে ফরহাদ আহমেদ সিটুল, নাইম উদ্দিন, পুস্কর ক্ষীসা মিমো ও জিমি লক্ষ্যভেদ করেন। বাংলাদেশের সোহানুর রহমান সবুজ লক্ষ্যভেদে ব্যর্থ হন। গোলরক্ষক নিপ্পন ফেরান দুটি হিট।

এর আগে প্রথম কোয়ার্টারে বাংলাদেশের সার্কেলে চাপ ধরে রেখে একের পর এক পেনাল্টি কর্নার (পিসি) পায় চীন। সপ্তদশ মিনিটে দু তালাকে ষষ্ঠ পিসি কাজে লাগালে এগিয়ে যায় দলটি। একটু পর পিসি থেকেই ব্যবধান দ্বিগুণ করেন তালাকে। ২২তম মিনিটে মিমোর দুটি প্রচেষ্টা ফিরিয়ে বাংলাদেশকে হতাশ করে গোলরক্ষক।

পেনাল্টি স্ট্রোক থেকে আশরাফুল ইসলাম লক্ষ্যভেদ করলে ম্যাচে ফেরে বাংলাদেশ। সার্কেলের ভেতর রোমান সরকার ফাউলের শিকার হলে পেনাল্টির বাঁশি বাজিয়েছিলেন আম্পায়ার।

২৮তম মিনিটে পেনাল্টি কর্নার থেকে লক্ষ্যভেদ করে হ্যাটট্রিক পূরণ করেন তালাকে। দুই গোল হজমের পর পোস্টের নিচে অসীম গোপের বদলি নামা নিপ্পন তখন হতে পারেননি দলের ত্রাতা। তৃতীয় কোয়ার্টারের শেষ দিকে চীনের সার্কেলে চাপ বাড়াতে থাকে বাংলাদেশ। কিন্তু মইনুল ইসলাম কৌশিক-জিমি তালগোল পাকিয়ে লক্ষ্যভেদে ব্যর্থ হন।

ম্যাচের ৫৩তম মিনিটে পেনাল্টি কর্নার থেকে সরাসরি লক্ষ্যভেদ করতে না পারলেও বলের নিয়ন্ত্রণ রেখে মিলনের নেওয়া হিটে পরাস্ত হন গোলরক্ষক। পরের মিনিটে পেনাল্টি কর্নার থেকে দারুণ গোল করে দলকে সমতায় ফেরান কৌশিক। নির্ধারিত সময়ের খেলা ৩-৩ স্কোরলাইনে শেষ হওয়ায় ম্যাচের ভাগ্য গড়ায় শ্যুট-আউটে যাতে নিপ্পনের দৃঢ়তায় জয় পায় বাংলাদেশ।