cosmetics-ad

দীর্ঘ ১৪ বছর পর কিমের দেশে যাচ্ছেন চীনা প্রেসিডেন্ট

kim-shi-jin-ping

চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং আগামী বৃহস্পতিবার দু’দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে উত্তর কোরিয়া যাচ্ছেন। সফরে তিনি কোরীয় উপদ্বীপে বিদ্যমান বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উনের সঙ্গে কথা বলবেন।

গত ১৪ বছরের মধ্যে এই প্রথম কোনো চীনা প্রেসিডেন্ট উত্তর কোরিয়া সফরে যাচ্ছেন। জাপানে অনুষ্ঠেয় জি-২০ শীর্ষ সম্মেলনের এক সপ্তাহ আগে এ সফর অনুষ্ঠিত হচ্ছে। জি-২০ শীর্ষ সম্মেলনে প্রেসিডেন্ট শি তার মার্কিন সমকক্ষ ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন বলে কথা রয়েছে।

২০০৫ সালে চীনের তৎকালীন প্রেসিডেন্ট হু জিনতাও উত্তর কোরিয়া সফর করেন এবং তখন উত্তর কোরিয়ার তৎকালীন নেতা কিমের পিতা কিম জং-ইল তাকে স্বাগত জানান। এরপর থেকে কোনো চীনা প্রেসিডেন্ট পিয়ংইয়ং সফর না করলেও কিম জং-উন চারবার বেইজিং সফর করেন।

উত্তর কোরিয়ার পরমাণু অস্ত্র কর্মসূচিকে কেন্দ্র করে দেশটির ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের একাধিক প্রস্তাবে চীন সমর্থন দেয়। এ অবস্থায় দু’দেশের সম্পর্ককে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে চীনের প্রেসিডেন্টের এ সফর অনুষ্ঠিত হচ্ছে বলে মনে করা হচ্ছে।

চীনের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন সিসিটিভি জানিয়েছে, চীন-উত্তর কোরিয়া সম্পর্কে নতুন অধ্যায়ের সূচনা হতে যাচ্ছে। কিম ও শি’র সর্বশেষ সাক্ষাতে দু’দেশ বেশ কিছু ইস্যুতে ঐক্যমত্যে পৌঁছেছে বলেও জানায় সিসিটিভি জানিয়েছে।

চীনা প্রেসিডেন্ট এমন সময় পিয়ংইয়ং সফরে যাচ্ছেন যখন উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন ও মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের মধ্যে দুইবার সাক্ষাৎ হওয়া সত্ত্বেও দু’দেশের সম্পর্কে অচলাবস্থা চলছে। ভিয়েতনামের রাজধানী হ্যানয়ে গত ফেব্রুয়ারিতে ট্রাম্প ও কিমের সর্বশেষ বৈঠক ব্যর্থ হয়।