cosmetics-ad

বিমানে যাত্রী না নেয়ায় নভোএয়ার এর জরিমানা

novo-air

বেসরকারি বিমান পরিবহন প্রতিষ্ঠান নভোএয়ারকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করেছে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর। প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী হুইল চেয়ারের যাত্রী না নেয়ার অভিযোগে এই জরিমানা করা হয়। বৃহস্পতিবার অভিযোগ শুনানি শেষে এ জরিমানা করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন অধিদফতরের ঢাকা বিভাগীয় কাযার্লয়ের উপ-পরিচালক (উপ-সচিব) মনজুর মোহাম্মদ শাহরিয়ার।

তিনি বলেন, আসিফ এন সালেহীন নামের এক যাত্রী গত ১৯ ডিসেম্বর নভোএয়ারের বিরুদ্ধে প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী সেবা না দেয়ার অভিযোগ দায়ের করেন।

অভিযোগে সালেহীন উল্লেখ করেন, তার বাবা অসুস্থ, তিনি প্রবীণ, চলাচল করেন হুইল চেয়ারে। জমি সংক্রান্ত জরুরি প্রয়োজনে সৈয়দপুরে যাওয়ার জন্য নভোএয়ারের টিকিট কাটেন। হুইল চেয়ারে বসেই তার বাবার সৈয়দপুর যেতে হবে। বিষয়টি নভোএয়ারকে জানিয়েই টিকিট কেনা হয়। গত ১৯ ডিসেম্বর সৈয়দপুর যাওয়ার উদ্দেশ্যে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে গেলে নভোএয়ারের কর্তৃপক্ষ হুইল চেয়ারে যাওয়া যাবে না জানান।

সালেহীন বলেন, টিকিট কেনার সময় বিষয়টি বলা হয়েছে তখন তারা কিছু বলেনি। যাওয়া যাবে বলে আমাদের টিকিট দিয়েছে। এটা আমাদের সঙ্গে এক ধরনের প্রতারণা করেছে নভোএয়ার।

অভিযোগ করে ১২ হাজার ৫০০ টাকা পুরস্কার পেলেন আসিফ

বিষয়টি আমলে নিয়ে উভয়পক্ষের উপস্থিতিতে একাধিকবার শুনানি করে ভোক্তা অধিদফতার। শুনানিতে নভোএয়ারের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ প্রমাণিত হয়।

ভোক্তার সঙ্গে প্রতিশ্রুতি ভঙ্গ করায় ভোক্তা সংরক্ষণ আইন, ২০০৯ এর ৪৫ ধারা অনুযায়ী নভোএয়ারকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। আইন অনুযায়ী জরিমানার ২৫ শতাংশ অর্থাৎ ১২ হাজার ৫০০ টাকা পুরস্কার হিসেবে অভিযোগকারী আসিফ এন সালেহীনকে প্রদান করা করা হয়।

নভোএয়ারের নির্বাহী কর্মকর্তা (মার্কেটিং অ্যান্ড মিডিয়া কমিউনিকেশন) নীলাদ্রি মহারত্নর কাছে এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বিষয়টি জানেন না বলে জানান।