Search
Close this search box.
Search
Close this search box.

চেন্নাইয়ের বিরুদ্ধে কলকাতার সহজ জয়

kolkataলক্ষ্যটা খুব ছোট ছিল না। কলকাতা নাইট রাইডার্সের সামনে ১৭৮ রানের লক্ষ্য ছুঁড়ে দিয়েছিল চেন্নাই সুপার কিংস। কিন্তু এই লক্ষ্যকেও মামুলি বানিয়ে ছাড়লেন শুভমান গিল আর দীনেশ কার্তিক। এই যুগলের ব্যাটে চড়ে চেন্নাইকে ৬ উইকেট আর ১৪ বল হাতে রেখে হারিয়েছে কলকাতা।

৩৬ বলে ৬ বাউন্ডারি আর ২ ছক্কায় হার না মানা ৫৭ রানের ইনিংস খেলেন গিল। অধিনায়ক কার্তিক ১৮ বলে ৭ চার আর ১ ছক্কায় করেন অপরাজিত ৪৫ রান। এছাড়া সুনীল নারিন ওপেনিংয়ে নেমে ২০ বলে করেন ৩২ রান।

এর আগে নির্ধারিত ২০ ওভারে চেন্নাই সুপার কিংস তুলেছিল ৫ উইকেটে ১৭৮ রান। টসে হেরে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা দুর্দান্ত ছিল চেন্নাইয়ের। ফাফ ডু প্লেসিস আর শেন ওয়াটসন ৩১ বলের উদ্বোধনী জুটিতে তুলেন ৪৮ রান।

১৫ বলে ৪ বাউন্ডারি আর ১ ছক্কায় ২৭ রান করা ডু প্লেসিসকে ফিরিয়ে এই জুটিটি ভাঙেন পীযূষ চাওলা। দ্বিতীয় উইকেটে সুরেশ রায়নাকে নিয়ে তবু চালিয়েই খেলেছেন ওয়াটসন। এই উইকেটে তারা গড়েছেন ৪৩ রানের জুটি।

২৫ বলে ৪ বাউন্ডারি আর ২ ছক্কায় ৩৬ রান করে সুনীল নারিনের শিকার হন ওয়াটসন। অল্প ব্যবধানে সুরেশ রায়নাও (২৬ বলে ৩১) ফিরেন কুলদ্বীপ যাদবের বলে। এরপর ১৭ বলে ২১ রান করে আম্বাতি রাইডুও নারিনের বলে বোল্ড হলে ১১৯ রানের মধ্যে ৪ উইকেট হারিয়ে বসে চেন্নাই।

chardike-ad

পরের সময়টায় অবশ্য বরাবরের মতো চালিয়ে খেলেছেন ধোনি। দলকে লড়াকু পুঁজি এনে দিতে সামনে থেকেই নেতৃত্ব দিয়েছেন চেন্নাই অধিনায়ক। এর মাঝে ১২ বলে ১৩ রান করে আউট হয়ে যান জাদেজা।

তবে ধোনি শেষপর্যন্ত অপরাজিত ছিলেন ২৫ বলে ৪৩ রান নিয়ে। ঝড়ো এই ইনিংসে ১টি বাউন্ডারির সঙ্গে ৪টি ছক্কা হাঁকান চেন্নাইয়ের উইকেটরক্ষক এই ব্যাটসম্যান।